শিরোনাম
প্রকাশ : ৫ ডিসেম্বর, ২০২০ ০৪:০৩
প্রিন্ট করুন printer

ফরিদপুর সেফ হোম থেকে পালিয়েছে ৩ তরুণী ও ১ কিশোরী

ফরিদপুর প্রতিনিধি :

ফরিদপুর সেফ হোম থেকে পালিয়েছে ৩ তরুণী ও ১ কিশোরী

ফরিদপুর শহরের টেপাখেলা এলাকায় অবস্থিত ‘মহিলা ও শিশু কিশোরী হেফাজতিদের নিরাপদ আবাসন কেন্দ্র’ সেফ হোম থেকে পালিয়ে গেছে ৩ তরুণী ও ৪ কিশোরী। শুক্রবার ভোর চারটার দিকে এ ঘটনা ঘটে। এ বিষয়ে ফরিদপুর কোতয়ালী থানায় জিডি করা হয়েছে।

শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত শুক্রবার রাত ১০টার পরও তাদের কোন সন্ধান মেলেনি। ফরিদপুর কোতয়ালী থানা পুলিশ কিশোরীদের উদ্ধারে চেষ্টা চালাচ্ছে বলে জানা গেছে। সেফ হোম সূত্রে জানা গেছে, সেফ হোমে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত মোট নিবাসী ছিল ৭২ জন। এরমধ্যে শুক্রবার ভোর চারটার দিকে নিরাপত্তায় থাকা দুই নারী প্রহরীর চোখ ফাঁকি দিয়ে সীমানা প্রাচীর টপকে পালিয়ে যায় তারা।

জানা গেছে, পালিয়ে যাওয়া চারজনের মধ্যে একজন রাজবাড়ী আদালত থেকে আসা। তার বয়স ২১ বছর, অপরজন রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ থেকে আসা। তার বয়স ২০ বছর। অপর দু’জনের মধ্যে একজন গোপালগঞ্জ (বয়স ১৮) ও অপরজন শরীয়তপুর থেকে এ সেফ হোমে আসেন (বয়স ১৭)। তারা সবাই ভবঘুরে হিসাবে উল্লেখিত জেলা পুলিশের হাতে আটক হয়ে আদালতের মাধ্যমে ফরিদপুর সেফ হোমে আসে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে সেফ হোমের উপ তত্ত্বাবধায়ক রুমানা আক্তার বলেন, নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা দুই আনসার সদস্য ঘুমিয়ে থাকার সুযোগ নিয়ে তারা পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়। এ বিষয়ে কোতয়ালী থানায় জিডি করা হয়েছে। তিনি আরও বলেন, পুলিশের সাথে সেফ হোমের কর্মকর্তারা তাদের উদ্ধারে কাজ করছে।

ফরিদপুর কোতয়ালী থানার ওসি মোরশেদ আলম বলেন, সেফহোম থেকে পালিয়ে যাওয়া ৪ কিশোরীকে উদ্ধারে পুলিশ বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালাচ্ছে।

বিডি-প্রতিদিন/শফিক


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর