শিরোনাম
প্রকাশ : ২১ জুলাই, ২০২১ ০৯:২৭
আপডেট : ২১ জুলাই, ২০২১ ১১:২৭
প্রিন্ট করুন printer

খুলনা ডেডিকেটেড হাসপাতালে অক্সিজেন বন্ধ দেড় ঘণ্টা

নিজস্ব প্রতিবেদক, খুলনা

খুলনা ডেডিকেটেড হাসপাতালে অক্সিজেন বন্ধ দেড় ঘণ্টা
Google News

অক্সিজেন সরবরাহ লাইনে ত্রুটির কারণে খুলনা করোনা ডেডিকেটেড হাসপাতালে প্রায় দেড় ঘণ্টা লিকুইড অক্সিজেন সরবরাহ বন্ধ ছিল। এতে মঙ্গলবার রাত ১২টার পর থেকে পৌনে দুইটা পর্যন্ত ভয়াবহ পরিস্থিতির তৈরি হয়। এসময় ‘খুলনা অক্সিজেন ব্যাংক’র স্বেচ্ছাসেবকরা অক্সিজেন সিলিন্ডার নিয়ে হাসপাতালের ভিতরে ঢুকতে গেলে তাদেরকেও বাধা দেওয়া হয়। এতে স্বেচ্ছাসেবক কর্মী ও রোগীর স্বজনদের মধ্যে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়। 

খুলনা অক্সিজেন ব্যাংকের কর্মী ফরহাদ হোসেন জানান, রাত ১২টার পর হঠাৎ করেই হাসপাতালের লিকুইড অক্সিজেন প্লান্ট থেকে অক্সিজেন সরবরাহ বন্ধ হয়ে যায়। এসময় কয়েকজন রোগীর শরীরে অক্সিজেন স্যাচুরেশন ৬০-৪০ এ নেমে আসে। এ অবস্থায় রোগীর শ্বাসকষ্ট শুরু হলে স্বজনরা বিকল্প অক্সিজেন সিলিন্ডারের জন্য ছোটাছুটি শুরু করে। হাসপাতালের সামনে থাকা খুলনা অক্সিজেন ব্যাংক বুথ থেকে তাৎক্ষণিক কিছু সিলিন্ডার দেওয়া হয়। পরে মূল অফিস থেকে ৮০টা অক্সিজেন সিলিন্ডার আনা হয়। কিন্তু এসময় ‘বাইরের সিলিন্ডার ভিতরে ঢুকানো যাবে না’ জানিয়ে মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আরএমও ডা. সুহাস রঞ্জন হালদারের নির্দেশে করোনা ইউনিটে প্রধান ফটক বন্ধ করে দেওয়া হয়। এতে পরিস্থিতি উত্ত্যপ্ত হতে থাকে। প্রতিবাদ করলে খুলনা অক্সিজেন ব্যাংকের কর্মীদের ওপর হামলা ও দুইকর্মীকে আহত করার অভিযোগ ওঠে। খবর পেয়ে রোগীর স্বজনরা হাসপাতালের সামনে জড়ো হয়। 

এদিকে প্রায় দেড় ঘণ্টা পর হাসপাতালের অক্সিজেন লাইনের ত্রুটি মেরামত করে লিকুইড অক্সিজেন সরবরাহ চালু করা হয়। রাত পৌনে ২টার দিকে অক্সিজেন সরবরাহ স্বাভাবিক হলে পরিস্থিতি শান্ত হয়।     

বিডি-প্রতিদিন/সালাহ উদ্দীন

এই বিভাগের আরও খবর