২৭ অক্টোবর, ২০২১ ১৭:৪৩

আদমদীঘিতে ১১ টন সরকারি চাল জব্দ

নিজস্ব প্রতিবেদক, বগুড়া:

আদমদীঘিতে ১১ টন সরকারি চাল জব্দ

বগুড়ার আদমদীঘি উপজেলায় এক ব্যবসায়ীর গুদাম থেকে খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির ১০ টাকা কেজির প্রায় পৌনে ১১ টন চাল জব্দ করা হয়েছে। গুদাম মালিক হলেন উপজেলার নশরতপুর ইউনিয়নের পূর্ব ডালম্বা গ্রামের একরাম আলীর ছেলে ব্যবসায়ী আল মামুন (৪৫)। 

বুধবার বিকেল এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছিল। এর আগে মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শ্রাবনী রায় উল্লেখিত পরিমাণ চাল জব্দ ও উদ্ধার করেন।

জানা গেছে, দীর্ঘদিন উপজেলার নশরতপুর বাজার এলাকায় জনৈক ইসমাইল হোসেনের চালকলের গুদাম ভাড়া নিয়ে ব্যবসায়ী আল মামুন চালের ব্যবসা করে আসছিলেন। তার বৈধ ব্যবসার পাশাপাশি সরকারি খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির আওতায় ১০ টাকা কেজির চালগুলোও কিনে গুদামজাত করতেন। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শ্রাবনী রায় ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে ওই গুদামে অভিযান পরিচালনা করেন। এসময় ওই গুদামের ভেতর মজুদ করা খাদ্য অধিদপ্তরের ২১৪টি চটের বস্তায় থাকা ১০ হাজার ৭শ কেজি চাল ঢেলে প্লাস্টিক বস্তায় রিপ্যাক করা হচ্ছিল। ইউএনও’র উপস্থিতি টের পেয়ে গুদাম মালিক ও কর্মচারিরা পালিয়ে যায়। ওই দিন রাতেই উল্লেখিত পরিমাণ চালগুলো জব্দ করা হয়।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) শ্রাবনী রায় জানান, অবৈধ ভাবে চাল মজুদকারির বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য মামলা করতে উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তাকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক কর্মকর্তা কেএম গোলাম রাব্বানী বলেন, জব্দ করা চালগুলো থানা পুলিশ হেফাজতে নিয়েছেন। অভিযুক্ত ও জড়িতের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হবে। 

বিডি প্রতিদিন/এএম

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর