১১ জুলাই, ২০২২ ১৬:১০

সাভারের চামড়া শিল্প নগরীতে ভোক্তা অধিকারের অভিযান

সাভার প্রতিনিধি

সাভারের চামড়া শিল্প নগরীতে ভোক্তা অধিকারের অভিযান

কোরবানির পশুর চামড়া সরকার নির্ধারিত মূল্যে কেনা-বেচা ও সঠিক প্রক্রিয়ায় সংরক্ষণ করা হচ্ছে কিনা তা তদারকি করতে অভিযান চালাচ্ছে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর। সাভারের আমিনবাজার ও হেমায়েতপুর চামড়া শিল্প নগরীতে দুপুরে এ অভিযান চালানো হয়। অভিযান পরিচালনা করছেন অধিদপ্তরের মহা-পরিচালক এএইচএম সফিকুজ্জামান।

এবার গত বছরের তুলনায় সর্বোচ্চ ৩৫ ভাগ কমিয়ে কোরবানির পশুর চামড়ার দাম নির্ধারণ করেছে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়। ঢাকায় লবণযুক্ত প্রতি বর্গফুট গরুর চামড়া ৪৫-৪০ টাকা, ঢাকার বাইরে ২৮-৩২ টাকা নির্ধারণ করে দেয়া হয়েছে। গত বছর ঢাকায় প্রতি বর্গফুট চামড়ার মূল্য ছিল ৪৫-৫০ টাকা এবং মফস্বলে ৩৫-৪০ টাকা। সারা দেশে খাসির চামড়ার মূল্য ধরা হয়েছে এবার ১৩-১৫ টাকা, গত বছর ছিল ১৮-২০ টাকা। বকরির চামড়া ১০-১২ টাকা, যা গত বছর ছিল ১৩-১৫ টাকা।

সরকার চামড়ার দাম নির্ধারণ করে দিলেও বাস্তবে দেখা গেছে ভিন্ন চিত্র। এবারও কোরবানির চামড়ার বাজারে বড় ধরনের ধস নেমেছে। খোদ রাজধানীতে প্রতি পিস গরুর চামড়া কেনা-বেচা হয়েছে মাত্র ৪০০ থেকে ৭৫০ টাকায়, যা সরকার নির্ধারিত দামের চেয়ে অনেক কম।

এ ব্যাপারে অধিদপ্তরের মহা-পরিচালক এএইচএম সফিকুজ্জামান বলেন, এখানে মূলত চামড়া সঠিক প্রক্রিয়ায় লবণ দিয়ে সংরক্ষণ করা হচ্ছে কিনা এটি দেখা হচ্ছে। এছাড়া সরকার নির্ধারিত মূল্যে চামড়া কেনা-বেচা হচ্ছে কিনা তাও দেখা হচ্ছে। এ পর্যন্ত যেসব আড়তে গিয়েছি সব জায়গায় সঠিক নিয়মে সংরক্ষণ করতে দেখা গেছে। তবে কোনো অনিয়ম বা অভিযোগ পেলে আমরা আইন অনুযায়ী শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেব।

পরিদর্শনের কারণ ব্যাখ্যা করে শিল্প সচিব জাকিয়া সুলতানা বলেন মৌসুমি ব্যবসায়ীরা সঠিক মূল্য পাচ্ছে কিনা, চামড়া সঠিকভাবে লবণ যুক্ত করা হচ্ছে কিনা এবং লবণের কোনো সিন্ডিকেট তৈরি হচ্ছে কিনা- এ বিষয়গুলো তদারকি করা। 

প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের দিকনিদর্শনায় চামড়ার সঠিক দাম ও সংরক্ষণের বিষয়টি সর্বাধিক গুরুত্ব দিয়ে মনিটরিং করা হচ্ছে। কোরবানির পশুর চামড়া নিয়ে যেন কোনো ধরনের বিশৃঙ্খলা বা অব্যবস্থাপনা তৈরি না হয়, সেটাও মনিটরিং টিমগুলো নিশ্চিত করছে। শিল্প সচিব সাভারের বিসিক চামড়া শিল্পনগরীর কেন্দ্রীয় বর্জ্য পরিশোধনাগার (সিইটিপি) পরিদর্শন করেন এবং তার আগে আমিন বাজারে চামড়া আড়তের ব্যবসীয়দের সাথে কথা বলেন এবং লবণ দিয়ে চামড়া সংরক্ষণ প্রক্রিয়া পরিদর্শন করেন বলেন।

বিডি প্রতিদিন/আবু জাফর

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর