শিরোনাম
প্রকাশ : সোমবার, ৯ ডিসেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ৮ ডিসেম্বর, ২০১৯ ২৩:৫০

দুর্নীতিবিরোধী লড়াই প্রধানমন্ত্রীর একার নয়

নিজস্ব প্রতিবেদক

দুর্নীতিবিরোধী লড়াই প্রধানমন্ত্রীর একার নয়

দুর্নীতির বিরুদ্ধে লড়াইয়ের গুরুদায়িত্ব প্রধানমন্ত্রীর একার নয়। দুর্নীতি প্রতিরোধে দায়িত্বপ্রাপ্ত সব প্রতিষ্ঠানকে সব ধরনের ভয়ের ঊর্ধ্বে থেকে ন্যায়বিচার নিশ্চিত করে দুর্নীতি প্রতিরোধ করতে হবে। এক্ষেত্রে প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণার তিনটি মূল বিষয় দুর্নীতির বিরুদ্ধে শূন্য সহনশীলতা, দুর্নীতির সঙ্গে জড়িত কাউকে ছাড় না দেওয়া এবং সংশ্লিষ্ট অভিযান ক্ষমতাসীন দল থেকেই শুরু করতে হবে। এ ঘোষণা সরকারের রাজনৈতিক সদিচ্ছার বহিঃপ্রকাশ। ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশের (টিআইবি) নির্বাহী পরিচালক ড. ইফতেখারুজ্জামান গতকাল জাতীয় সংসদ ভবন সম্মুখে টিআইবি ও সচেতন নাগরিক কমিটি আয়োজিত দুর্নীতিবিরোধী মানববন্ধনে এসব কথা বলেন। আন্তর্জাতিক দুর্নীতিবিরোধী দিবস উপলক্ষে এই মানববন্ধনের আয়োজন করা হয়। তিনি আরও বলেন, এবারের দুর্নীতিবিরোধী দিবস উদযাপনের প্রেক্ষাপট ব্যতিক্রম। দুর্নীতির বিরুদ্ধে প্রধানমন্ত্রীর উদ্যোগে চলমান অভিযান দেশবাসীর মনে আশার সঞ্চার করেছে। দুর্নীতির বিরুদ্ধে সব স্তরের মানুষ যেন সোচ্চার এবং প্রতিবাদী ভূমিকা পালন করতে পারে তার উপযুক্ত পরিবেশ নিশ্চিতে সরকারকে কার্যকর উদ্যোগ নিতে হবে।

‘অন্তর্ভুক্তিমূলক টেকসই উন্নয়ন : দুর্নীতির বিরুদ্ধে একসঙ্গে’ এই প্রতিপাদ্যে এ বছর দিবসটি উদযাপন করছে টিআইবি। এ উপলক্ষে জাতীয় পর্যায়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন অনুষদের মুট কোর্ট সোসাইটির সঙ্গে যৌথভাবে টিআইবির দুর্নীতিবিরোধী মুট কোর্ট প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এ ছাড়া জাতীয় পর্যায়ে দুর্নীতিবিরোধী অনুসন্ধানী সাংবাদিকতা পুরস্কার এবং কার্টুন প্রতিযোগিতা ও প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়েছে।


আপনার মন্তব্য