Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ২৩ মে, ২০১৯ ১২:৩৫

ক্ষেপণাস্ত্র ক্রয়ে তুরস্ককে যুক্তরাষ্ট্রের আল্টিমেটাম, রাশিয়ার নিন্দা

অনলাইন ডেস্ক

ক্ষেপণাস্ত্র ক্রয়ে তুরস্ককে যুক্তরাষ্ট্রের আল্টিমেটাম, রাশিয়ার নিন্দা

বিমান বিধ্বংসী ক্ষেপণাস্ত্র এস-৪০০ কেনার চুক্তি বাতিলের বিষয়ে তুরস্ককে যুক্তরাষ্ট্র যে চূড়ান্ত সময়সীমা বেধে দিয়েছে তার নিন্দা জানিয়েছে রাশিয়া। 

মার্কিন পদক্ষেপকে অগ্রহণযোগ্য বলে মন্তব্য করেছে রাশিয়া।

এদিকে ক্রেমলিনের মুখপাত্র দিমিত্রি পেসকভ বলেন, ‌আমরা বিষয়টিকে চরমভাবে নেতিবাচক হিসেবে বিবেচনা করছি। আমরা এ ধরনের সময়সীমা বেধে দেওয়ার ঘটনাকে অগ্রহণযোগ্য মনে করি।

মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় তুরস্ককে জুন মাসের প্রথম সপ্তাহ পর্যন্ত সময় দিয়েছে। এর মধ্যে তুরস্ক রাশিয়ার কাছ থেকে এস-৪০০ ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা কেনার চুক্তি বাতিল না করলে দেশটির ওপর নিষেধাজ্ঞা দেবে ওয়াশিংটন। 

এছাড়াও যদি তুরস্ক রাশিয়া হতে এস-৪০০ গ্রহণ করে তাহলে মার্কিন এফ-৩৫ জঙ্গিবিমান পাওয়া থেকে বঞ্চিত হবে। তুরস্ক ১০০টি এফ-৩৫ বিমান কেনার অর্ডার দিয়েছে। শুধু তাই নয়, মার্কিন নেতৃত্বাধীন ন্যাটো সামরিক জোট থেকেও তুরস্ককে বহিষ্কার করা হতে পারে।

জানা যায়, বিমান বিধ্বংসী ক্ষেপণাস্ত্র এস-৪০০ প্রশিক্ষণের জন্য ইতোমধ্যে রাশিয়ায় গেছে তুর্কি সেনবাহিনীর একটি দল। এস-৪০ এর লক্ষ্যমাত্রা সর্বোচ্চ ৬০০ কিলোমিটার। যা মিসাইল শনাক্ত ও ধ্বংস করতে পারে ৫ থেকে ৬০ কিলোমিটারের মধ্যে।

এস ৪০০ একই সময়ে ৩৬টি লক্ষবস্তুতে আঘাত হানতে পারে এমনকি একই সময়ে ৭২টি মিসাইল ছুড়তে সক্ষম। এটি মাঝারি ও দূরপাল্লা আকাশ বিমান হামলা প্রতিরোধে সক্ষম। এস ৪০০তে রয়েছে অতিরিক্ত শনাক্তকারী রাডার, টাওয়ার ও এন্টোনা পোস্ট যা এক জায়গা থেকে অন্য জায়গায় নেয়া যায়।

তুরস্ক যখন রাশিয়া থেকে এস-৪০০ আকাশ ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরক্ষা ব্যবস্থা গ্রহণ করতে শুরু করেছে, তখন যুক্তরাষ্ট্র ও তুরস্কের সঙ্গে উত্তেজনা চরমে পৌঁছেছে।


বিডি-প্রতিদিন/বাজিত হোসেন


আপনার মন্তব্য