শিরোনাম
প্রকাশ : ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ২১:৫৩
আপডেট : ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ২১:৫৬

থাইল্যান্ডে সরকারবিরোধী বিক্ষোভ, রাজতন্ত্র পুনর্গঠনও দাবি

অনলাইন ডেস্ক

থাইল্যান্ডে সরকারবিরোধী বিক্ষোভ, রাজতন্ত্র পুনর্গঠনও দাবি

সরকারবিরোধী বিক্ষোভে থাইল্যান্ডের রাজধানী ব্যাংককে যোগ দিতে অংশ নিয়েছে হাজার হাজার মানুষ। প্রধানমন্ত্রী প্রায়ুথ চান ওচার পদত্যাগ দাবি করেন বিক্ষোভকারীরা। 

শনিবার সরকারবিরোধী বিক্ষোভে অংশ নিতে ব্যাংককে জড়ো হতে থাকেন বিক্ষোভকারীরা। প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ দাবিতে দেশটিতে গত কয়েক সপ্তাহ ধরে প্রায় প্রতিদিনই শহরটিতে বিক্ষোভ হচ্ছে।

পুলিশ জানিয়েছে, থামাসাত বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে কমপক্ষে ১৮ হাজার বিক্ষোভকারী জড়ো হয়েছে। গ্র্যান্ড প্যালেসের বিপরীত পাশে অবস্থিত সানাম লঞ্জে জড়ো হয় বিক্ষোভকারীরা। সরকারবিরোধী বিক্ষোভে কমপক্ষে ৫০ হাজার নাগরিক অংশ নেয় বলে জানিয়ে আয়োজকরা।

দেশটিতে অভ্যুত্থানের মাধ্যমে ক্ষমতায় এসেছেন প্রায়ুথ চান ওচা। বিক্ষোভকারীদের অনেকেই থাইল্যান্ডের শক্তিশালী রাজতন্ত্রের পুনর্গঠনও দাবি করেছেন।

গত জুলাইয়ের মাঝামাঝি থেকেই থাই সরকারের অপসারণের দাবিতে বিক্ষোভ শুরু হয়েছে। নতুন সংবিধান এবং নির্বাচনের দাবি জানিয়েছেন বিক্ষোভকারীরা।

থাইল্যান্ডে সাধারণত রাজপরিবারের সমালোচনা করা নিষিদ্ধ। কিন্তু সাম্প্রতিক সময়ে থাইল্যান্ডের রাজা মাহা ভাজিরালংকর্নের সমালোচনা করে দীর্ঘদিনের এই প্রথা ভাঙলেন বিক্ষোভকারীরা।

থাইল্যান্ডে রাজনৈতিক অস্থিরতা ও বিক্ষোভের দীর্ঘ ইতিহাস রয়েছে। তবে গত ফেব্রুয়ারিতে আদালত গণতন্ত্রপন্থী একটি বিরোধী দল ভেঙে দেওয়ার নির্দেশ দেওয়ার পর নতুন বিক্ষোভ শুরু হয়। 

বিডি-প্রতিদিন/বাজিত হোসেন


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর