শিরোনাম
প্রকাশ : ৩০ জুন, ২০১৯ ০৯:৩৪

শাখা-সিঁদুর পরায় সমালোচনা, নুসরাতের পাশে দাঁড়ালেন বিজেপি মন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক

শাখা-সিঁদুর পরায় সমালোচনা, নুসরাতের পাশে দাঁড়ালেন বিজেপি মন্ত্রী
ফাইল ছবি

শপথগ্রহণের সময় দেওয়া নিজের পরিচয় নিয়ে তীব্র সমালোচনার মুখে পড়েছেন পশ্চিমবঙ্গের বসিরহাটের তৃণমূল সংসদ সদস্য অভিনেত্রী নুসরাত জাহান। পরে শাখা-সিঁদুর পরে সংসদে যান তিনি। এরপরই এই নিয়ে মৌলবাদী সংগঠনের তোপের মুখে পড়েন নুসরাত। এ প্রসঙ্গে মুখ খুলেছেন রায়গঞ্জের বিজেপি সাংসদ তথা কেন্দ্রীয় মন্ত্রী দেবশ্রী চৌধুরী। 

তিনি বলেন, "নিজের ধর্ম নিয়ে নিজের পরিচয় দেওয়া সাংবিধানিক অধিকার। সেই বিষয়ে আমার কোনও মন্তব্য দেওয়ার অধিকার নেই। মানুষের সেই অধিকার নিয়ে কারোও ফতোয়া দেওয়া উচিত নয়।"

তিনি আরও বলেন, "এটা পাকিস্তান নয়। এখানে ফতোয়া দিয়ে কোনও লাভ নেই। এটা ভারতবর্ষ। এখানে কারও সাংবিধানিক অধিকারে হস্তক্ষেপ করা যায় না। নুসরাতের শপথগ্রহণ নিয়ে ফতোয়ার বিষয়ে সংবিধানের রক্ষাকর্তারা রয়েছেন। তাঁরা নিশ্চয়ই ব্যবস্থা নেবেন।"

সম্প্রতি শাড়ি ব্যবসায়ী নিখিল জৈনের সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধেন সংসদ সদস্য তথা অভিনেত্রী নুসরাত জাহান। বিয়ের পর শাখা-সিঁদুর পরে সংসদে পা রাখেন নিখিল ঘরণী। অধিবেশন শুরুর প্রায় এক সপ্তাহ পর বৃহস্পতিবার শপথগ্রহণ করেন বসিরহাটের সাংসদ নুসরাত। সাংসদ হিসেবে শপথগ্রহণের সময় নুসরাত জাহান রুবি জৈন বলে নিজের নাম-পরিচয় দেন।

এরপরই এই নিয়ে মৌলবাদী সংগঠনের তোপের মুখে পড়েন নুসরাত। ধর্ম ও সংস্কৃতিকে অবমাননা করার অভিযোগে তাঁর বিরুদ্ধে ফতোয়া জারি করে মৌলবাদী সংগঠন। সেই ঘটনাতেই রায়গঞ্জে সার্কিট হাউসে এক সাংবাদিক বৈঠকে মুখ খোলেন কেন্দ্রীয় শিশু ও নারীকল্যাণ প্রতিমন্ত্রী বিজেপি সাংসদ দেবশ্রী চৌধুরী। 

সূত্র: জি নিউজ

বিডি প্রতিদিন/হিমেল


আপনার মন্তব্য