শিরোনাম
বৃহস্পতিবার, ২৫ জানুয়ারি, ২০২৪ ০০:০০ টা

এআই ভয়েস ক্লোনিং থেকে বাঁচার উপায়

টেকনোলজি ডেস্ক

এআই ভয়েস ক্লোনিং থেকে বাঁচার উপায়

হ্যাকিংয়ের মাধ্যমে টার্গেট ব্যক্তির আওয়াজ চুরি করে ভয়েস ক্লোনিং করা হয়। কিন্তু সেই ব্যক্তির বলার ধরন জানতে পারে না। এই আওয়াজে রোবোটিক সাউন্ড পেতে পারেন, ভুল উচ্চারণ এবং বলার ধরন আলাদা হতে পারে

তথ্য-প্রযুক্তি অনেক এগিয়েছে। কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার মাধ্যমে নকল করা হচ্ছে আওয়াজ। পরিচিতদের চেনা গলায় তাল মিলিয়ে ফোনে পাতা হচ্ছে ফাঁদ। এ নিয়ে সচেতনতা বাড়লেও কীভাবে ভুয়া কল ধরবেন তা জানেন না অনেকেই। কীভাবে সতর্ক হবেন...

এআই ভয়েস ক্লোনিং প্রতারণা : প্রিয়জনের গলার আওয়াজ নকল করে যে কোনো ফোন আসতে পারে। কিছু বুঝে ওঠার আগেই পড়ে যেতে পারেন ফাঁদে। এআই ভয়েস ক্লোনিং নিখুঁত হলেও তা ধরার উপায় রয়েছে। মূলত টার্গেট ব্যবহারকারীর প্রিয়জনদের গলায় এই প্রতারণা করা হয়। কল, হোয়াটসঅ্যাপ মেসেজের মাধ্যমে আসে রিকোয়েস্ট। এমন বার্তা পেলে রিপ্লাই দেওয়া থেকে বিরত থাকুন।

অপ্রত্যাশিত কল : প্রতারকরা সাধারণত ঠিক কখন প্রিয়জন বা বন্ধুরা ফোন করে তা জানতে পারে না। যদি আত্মীয় বা কোনো বন্ধুদের নাম করে অপ্রত্যাশিত কল পান তাহলে সতর্ক হোন। ভুল সময়ে ঘন ঘন ফোন এলে সজাগ থাকুন। সেটা রিসিভ করা তো দূরে থাক, সেই নম্বর ভুয়া হলে দ্রুত ব্লক করে দিন।

জরুরি অনুরোধ : দয়া করে টাকা পাঠাবেন, ইমারজেন্সি, খুব দরকার- এই ধরনের শব্দ শুনতে পেলে সাবধান। প্রতারকরা জরুরি অনুরোধের নাম করে চাপ বাড়াতে পারে। দ্রুত টাকা পাঠানোর অনুরোধ করতে পারে। এমতাবস্থায় পরিচয় যাচাই না করে কোনো লেনদেন করবেন না।

গলা হুবহু এক, তবে বলার ধরন আলাদা : হ্যাকিংয়ের মাধ্যমে টার্গেট ব্যক্তির আওয়াজ চুরি করে ভয়েস ক্লোনিং করা হয়। কিন্তু সেই ব্যক্তির বলার ধরন জানতে পারে না। এই আওয়াজে রোবোটিক সাউন্ড পেতে পারেন, ভুল উচ্চারণ এবং বলার ধরন আলাদা হতে পারে। এমনটা হলে বুঝবেন এআই ক্লোনিংয়ের শিকার। এ ক্ষেত্রেও দ্রুত সতর্ক হতে হবে।

টাকা বা ব্যক্তিগত তথ্য চাইবে : প্রতারকরা ভয়েস ক্লোনিংয়ের মাধ্যমে টাকা হাতানো এবং ব্যক্তিগত তথ্য চুরি করতে চাইবে। তাই কখনোই নিজের ব্যাংক অ্যাকাউন্ট নম্বর, এটিএম কার্ড নম্বর, ইউপিআই পিন, ওটিপি এবং পাসওয়ার্ড শেয়ার করবেন না। সেই নম্বর অবিলম্বে রিপোর্ট করুন এবং ব্লক করে দিন।

সর্বশেষ খবর