Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ২৫ মার্চ, ২০১৯ ১৭:০২

সিকৃবির ছাত্র ওয়াসিম হত্যায় ৩ জনের বিরুদ্ধে মামলা

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি

সিকৃবির ছাত্র ওয়াসিম হত্যায় ৩ জনের বিরুদ্ধে মামলা
ওয়াসিম আব্বাস ঘুড়ি (ফাইল ছবি)

মৌলভীবাজারের শেরপুরে আলোচিত সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (সিকৃবি) শিক্ষার্থী ওয়াসিম আব্বাস ঘুড়িকে (২১) বাসচাপায় হত্যার অভিযোগে চালক-হেলপার ও সুপারভাইজারের বিরুদ্ধে মৌলভীবাজার মডেল থানায় মামলা করা হয়েছে। 

সোমবার মৌলভীবাজার সদর মডেল থানায় মামলা করেন সংশ্লিষ্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর ড. মুত্যঞ্জয় কুন্ড। মামলা নাং ২২। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মৌলভীবাজার মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. সোহেল আহম্মদ।

আসামিরা হলেন বাসের চালক জুয়েল আহমদ, হেলপার মাসুক মিয়া ও সুপারভাইজার সেফুল মিয়া।

ঘটনার পর অভিযান চালিয়ে বাসচালক জুয়েল আহমদ ও হেলপার মাসুক মিয়াকে আটক করে মডেল থানা পুলিশ। গত শনিবার রাতে ওই দুজনকে পৃথক এলাকা থেকে আটক করে করা হয়।

নিহত ওয়াসিম হবিগঞ্জের নবিগঞ্জ উপজেলার রুদ্রগ্রাম এলাকার মাহবুব ঘুড়ির ছেলে। তিনি সিকৃবি’র মাস্টার্স শেষ বর্ষের শিক্ষার্থী ছিলেন। 

জানা যায়, নবীগঞ্জের টোলপ্লাজা থেকে সিলেট যাওয়ার উদ্দেশ্যে সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের কয়েকজন ছাত্র উদার পরিবহনে (ঢাকা মেট্রো-১৪:১২৮০) বাসে ওঠেন। এসময় হেল্পার মাসুক মিয়া তাদের কাছে ১শ' টাকা ভাড়া দাবি করে। এতে ওয়াসিম ও তার বন্ধুরা ছাত্র পরিচয় দিয়ে ভাড়া কম দেয়ার কথা জানায়। এতে হেলপার ক্ষুব্ধ হয়ে তাদের সাথে বাকবিতণ্ডায় জড়ায়। এক পর্যায়ে তারা মৌলভীবাজারের শেরপুরস্থ মুক্তিযোদ্ধা চত্বরে নেমে যায়। নামার সময় পেছন থেকে হেলপার তাদের গালি দেয়। এতে ওয়াসিম বাসের সিঁড়িতে উঠে হাত ধরে কেন গালি দিলেন তা জিজ্ঞেস করেছিলেন। এসময় চালক গাড়ির গতি বাড়িয়ে দেয়। ঠিক তখনই হেলপার মাসুক মিয়া ওয়াসিমকে ধাক্কা দিয়ে নিচে ফেলে দেয়। সাথে সাথে বাসের পেছনের চাকার নিচে পিষ্ট হয়ে ওয়াসিম গুরুতর আহত হন। পরে তাকে সিলেট এম এ জি ওসমানী হাসপাতালে নেয়া হলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। 

স্থানীয় সূত্রে আরো জানা গেছে, আটক বাস চালক জুয়েল আহমদ মৌলভীবাজার জেলার শ্রীমঙ্গল উপজেলার বারউড়া এলাকায় হিরণ মিয়ার ছেলে। সে সিলেট কদমতলীতে ভাড়া বাসায় থাকতো। হেলপার মাসুক মিয়া সুনামগঞ্জের ছাতক উপজেলার ঝাউয়া এলাকায় দৌলত মিয়ার ছেলে। এ ঘটনায় ঘাতক বাসটিকেও মৌলভীবাজার মডেল থানা হেফাজতে রাখা হয়েছে। 

বিডি-প্রতিদিন/২৫ মার্চ, ২০১৯/মাহবুব
    
 


আপনার মন্তব্য