শিরোনাম
প্রকাশ : ১৯ জানুয়ারি, ২০২০ ১৯:৪৮

'শিক্ষার মান বৃদ্ধিতে শিক্ষকদের অগ্রণী ভূমিকা রাখতে হবে'

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম:

'শিক্ষার মান বৃদ্ধিতে শিক্ষকদের অগ্রণী ভূমিকা রাখতে হবে'

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের (চসিক) মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেছেন, ‘চসিক পরিচালিত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানসমূহের ফলাফল শিক্ষাবোর্ডের ফলাফলের দিক থেকে পাশের হার বেশি হলেও মানের দিক থেকে এখনো পিছিয়ে আছে। শিক্ষার মান বৃদ্ধিতে প্রতিষ্ঠান প্রধান ও শিক্ষকদের অগ্রণী ভূমিকা পালন করতে হবে। শিক্ষকরা যদি তাদের দায়িত্বের প্রতি অনুগত থেকে নিষ্ঠার সঙ্গে কাজ করেন, তাহলে শিক্ষার্থীরা উপকৃত হবে। শিক্ষকরাই পারে শিক্ষার্থীদের কাউন্সেলিং করে সঠিকক দিকনির্দেশনার মাধ্যমে তাদের গড়ে তুলতে।’

রবিবার সকালে টায়গারপাসস্থ চসিক সম্মেলন কক্ষে চসিক পরিচালিত শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের পরিচালনা পর্ষদের সভায় সভাপতির বক্তব্যে একথা বলেন।   

এ সময় উপস্থিত ছিলেন কাউন্সিলর গোলাম হায়দার মিন্টু, মো. আজম, মো. আবুল হাসেম, প্রধান প্রকৌশলী লে. কর্ণেল সোহেল আহমদ, প্রধান শিক্ষা কর্মকর্তা সুমন বড়য়া, মেয়রের একান্ত সচিব মো. আবুল হাসেম, লামা বাজার এস এ সিটি কর্পোরেশন উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. শাহাদাত হোসেন মাহমুদ, পূর্ব বাকলিয়া সিটি কর্পোরেশন বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় কলেজের অধ্যক্ষ ও সদস্য সচিব মো. আবু তালেব বেলাল, কাপাসগোলা সিটি কর্পোরেশন মহিল কলেজের অধ্যক্ষ ও সদস্য সচিব মনোয়ার জাহান বেগম প্রমুখ।

সিটি মেয়র বলেন, ‘শিক্ষকতা পেশাটি একটি মহৎ ও মহান পেশা। সবচেয়ে সম্মানজনক পেশা। সমাজে শিক্ষকের মর্যাদা অনেক উপরে। সে মহৎ ও সম্মানজনক পেশাকে অক্ষুন্ন রাখতে প্রতিষ্ঠান প্রধান, শিক্ষক ও অভিভাবক  সমন্বয়ে শিক্ষার মানোন্নয়নে আন্তরিকতা সঙ্গে কাজ করা জরুরি।’  

তিনি বলেন, ‘একজন শিক্ষার্থীর জীবনে নৈতিক শিক্ষার প্রভাব খুবই সহায়ক ভূমিকা পালন করে। এ প্রজন্মের শিক্ষার্থীরা যাতে বিপদগামী না হয়, ভাল-মন্দের মধ্যে পার্থক্য বুঝতে পারে, তারা যেন আগামী দিনের সুনাগরিক হিসেবে  তৈরি হতে পারে, সেজন্য নৈতিক শিক্ষা প্রদানের মাধ্যমে পথপ্রদর্শক হিসেবে শিক্ষকদের কার্যকরি ভূমিকা রাখার বিকল্প নেই।’

বিডি প্রতিদিন/মজুমদার/ রেজা মুজাম্মেল     

 


আপনার মন্তব্য