শিরোনাম
প্রকাশ : ৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ১৯:১৫
প্রিন্ট করুন printer

খুলনায় হত্যা মামলায় মা-ছেলের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

নিজস্ব প্রতিবেদক, খুলনা

খুলনায় হত্যা মামলায় মা-ছেলের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

খুলনা সরকারী সুন্দরবন কলেজের অর্থনীতি বিভাগের ছাত্র সুদর্শন রায় (২৫) হত্যা মামলায় মা ও ছেলেকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন খুলনার আদালত। দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন- ডুমুরিয়া মির্জাপুর গ্রামের বিপুল বিশ্বাসের স্ত্রী দ্রৌপদী বিশ্বাস (৪৫) ও ছেলে কংকন বিশ্বাস (২২)। 

মামলার অপর আসামী দ্রোপদীর স্বামী বিপুল বিশ্বাসকে বেকসুর খালাস দিয়েছেন আদালত। রায় ঘোষণাকালে আসামীরা কাঠগড়ায় উপস্থিত ছিলেন। আজ রবিবার দুপুরে খুলনার অতিরিক্ত দায়রা জজ ১ম আদালতের বিচারক মো. ইয়ারব হোসেন এ রায় ঘোষণা করেন।

জানা যায়, আসামী দ্রৌপদী বিশ্বাসকে ৩০২ ধারায় যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ডের সাথে ১০ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরও ৬ মাসের সশ্রম কারাদণ্ড এবং ২০১ ধারায় ৩ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড ও ৫ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরও ৩ মাসের সশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। অপর আসামী কংকন বিশ্বাসকে ৩০২ ধারায় যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ডের সাথে ১০ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে ৬ মাসের সশ্রম কারাদণ্ড প্রদান করা হয়। 

জানা যায়, ২০১৭ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি রাতে বটিয়াঘাটা বুনারাবাদ গ্রামের সুকুমার রায়ের পুত্র সুদর্শন রায়কে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়। এরপর লাশটি গুম করার উদ্দেশ্যে ডুমুরিয়া মির্জাপুর গ্রামের অরুণ কুমার মহলদারের পুকুর পাড়ের বেড়িবাঁধের ওপর ফেলে রাখা হয়। 

পরে খবর পেয়ে পুলিশ লাশটি উদ্ধার করে পুলিশ। এঘটনায় নিহতের মামা দীনবন্ধু মন্ডল বাদী হয়ে ডুমুরিয়া থানায় দণ্ডবিধির ৩০২/২০১/৩৪ ধারায় মামলা দায়ের করেন যার নং ২৩। ২০১৮ সালের ২৯ জানুয়ারি তদন্ত কর্মকর্তা তিন আসামীর বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন।

বিডি প্রতিদিন/আবু জাফর

এই বিভাগের আরও খবর