শিরোনাম
প্রকাশ : ১২ মে, ২০২১ ১৮:৫৯
আপডেট : ১২ মে, ২০২১ ১৯:১৩
প্রিন্ট করুন printer

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে দীর্ঘ যানজট

সিদ্ধিরগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ) প্রতিনিধি

ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে দীর্ঘ যানজট
Google News

ঈদ উদযাপন করতে গ্রামের পথে ছুটছে মানুষ। এতে সকাল থেকেই ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে বেড়েছে পরিবহনের চাপ। ফলে দেখা দিয়েছে দীর্ঘ যানজট। 

বুধবার ভোর থেকে মেঘনা টোলপ্লাজা থেকে সাইনবোর্ড ছাড়িয়ে প্রায় ২০ কিলোমিটার এলাকাজুড়ে যানজট সৃষ্টি হয়। 

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, কাঁচপুর, চিটাগাং রোড, সাইনবোর্ড এলাকায় পণ্যবাহী পরিবহনের সাথে সাথে আন্তঃজেলা বাস, লেগুনা, সিএনজি, অটোরিকশা, মাইক্রোবাস, মোটরসাইকেল, প্রাইভেটকারসহ বিভিন্ন ধরনের পরিবহন যানজটে আটকে আছে। ঘণ্টাখানেক পর পর কিছুদূর যেতে পারলেও আবারও আটকে যেতে হচ্ছে। 

এদিকে, বাড়তি ভাড়া গুণে কার্ভাডভ্যান, ট্রাক, মাইক্রোতে চেপে যারা বাড়ি ফিরছিলেন যানজটের ফলে এখন অনেকেই হেঁটেই যাত্রা শুরু করেছেন। 

সাহাদাত হোসেন নামের এক যাত্রী যানজট থাকায় সাইনবোর্ডে থেকে শিমরাইল পর্যন্ত হেঁটে এসেছেন। তিনি বলেন, সড়কে তুলনামূলক বাস কম আছে। কিন্তু তারপরও অনেক যানজট। আমি দাউদকান্দি যাবো। যানজট থাকায় ভোগান্তিতে আছি।

তারা মিয়া নামে আরেক এক যাত্রী শনির আখড়া থেকে হেঁটে সানারপাড় এসেছেন। তিনি সোনারগাঁ মোগরাপাড়া যাবেন। তিনি জানান, দীর্ঘ যানজট থাকায় হেঁটেই সানারপাড় আসলাম। চিটাগাং রোড গিয়ে গাড়িতে উঠার চেষ্টা করবো। আর না পারলে হেঁটে চলে যাবো।

কাঁচপুর হাইওয়ে পুলিশের দাবি, মেঘনা টোল প্লাজায় টোল আদায়ে ধীরগতি থাকায় পরিবহনগুলো সড়কে আটকে গেছে। 

কাঁচপুর হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুজ্জামান জানান, ঈদকে কেন্দ্র করে মহাসড়কগুলোতে পরিবহনের চাপ ও মেঘনা টোল প্লাজায় টোল আদায়ে ধীরগতির জন্য এ যানজট সৃষ্টি হয়েছে। দূরপাল্লার বাস চলাচলে নিষেধাজ্ঞা থাকলেও কার্ভাডভ্যান, আন্তঃজেলা বাস, ছোট-বড় পরিবহন চলাচল করছে। আর ঘরমুখী লাখ লাখ মানুষ এ সকল পরিবহনে করেই করোনাভাইরাসের সংক্রমণের ঝুঁকি উপেক্ষা করে বাড়ি ফিরছে বলেও জানান তিনি।

বিডি প্রতিদিন/আরাফাত

এই বিভাগের আরও খবর