শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ৯ নভেম্বর, ২০১৬ ০০:০০ টা
আপলোড : ৮ নভেম্বর, ২০১৬ ২২:৫৬

ভিকটিমের চিকিৎসার টাকা পুলিশের পকেটে!

নিজস্ব প্রতিবেদক, রাজশাহী

ভিকটিমের চিকিৎসার টাকা পুলিশের পকেটে!

রাজশাহীর গোদাগাড়ীতে আপোষ-মীমাংসার মাধ্যমে নেওয়া চিকিৎসার টাকা নিজের পকেটে পুরেছেন থানা পুলিশের উপ-পরিদর্শক হাসান আলী। ভিকটিম গোদাগাড়ী উপজেলার দিয়াড় মোহাম্মদপুর এলাকার আবু সাঈদের ছেলে হাসিবুর (১৪) এবং গোলাপের ছেলে শামীম (২০) রাজশাহী মেডিকেলে চিকিৎসাধীন।

জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার বড়গাছির মোহাম্মদ আলমের বাড়িতে চুরি হয়। শুক্রবার রাতে মাটিকাটা ইউনিয়নের সংরক্ষিত মহিলা ইউপি সদস্য মার্জিনা খাতুনের ছেলে হরিশঙ্করপুরের হাসান চুরির অভিযোগ এনে হাসিবুর ও শামীমকে ধরে এনে নির্জন স্থানে নিয়ে বাঁশের লাঠি দিয়ে বেধড়ক পেটায়। এ সময় হাসিবুর ও শামীমের কোমরের নিচ থেকে পায়ের তলা পর্যন্ত গুরুতর জখম হয়। ভোরে এলাকার লোকজন গোদাগাড়ী মডেল থানা পুলিশকে জানান। এরপর থানার এসআই হাসানের নেতৃত্বে পুলিশের একটি দল নির্যাতিত ওই শিশু ও যুবককে থানায় নিয়ে যায়। মার্জিনা খাতুন এসআই হাসানকে ‘ম্যানেজ’ করে ফেলেন। এরপর নির্যাতিতদের ২০ হাজার টাকা চিকিৎসা বাবদ দেওয়ার আপসরফা হয়। এর মধ্যে শিশু হাসিবুরকে ৩ হাজার এবং যুবক শামীমকে দেওয়া হয়েছে ২ হাজার টাকা। বাকি ১৫ হাজার টাকা এসআই হাসান রেখে দিয়েছেন।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর