শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ ০০:০৩

সম্মেলনে বক্তারা

খুন গুম নির্যাতনে জনগণ অতিষ্ঠ

নিজস্ব প্রতিবেদক

নেজামে ইসলাম পার্টির জাতীয় সম্মেলনে নেতারা বলেছেন, ‘দেশে জুলুমতন্ত্র চলছে। খুন, গুম, অত্যাচার, নির্যাতনে জনগণ অতিষ্ঠ। আমরা আইয়্যামে জাহেলিয়ায় বাস করছি। দেশটা লুটের দেশে পরিণত হয়েছে। ভোটের অধিকার নেই। সর্বত্র হাহাকার। এ অবস্থা চলতে দেওয়া যায় না। ঐক্যবদ্ধভাবে এদের মোকাবিলা করতে হবে। জাতীয় ঐক্য গড়ে তুলতে হবে।’ গতকাল রাজধানীর বিএমএ মিলনায়তনে এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।  পার্টির আমির মাওলানা সারওয়ার কামাল আজিজীর সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন হেফাজত মহাসচিব আল্লামা নুরুল ইসলাম জিহাদী, কল্যাণ পার্টির চেয়ারম্যান মেজর অব. সৈয়দ মোহাম্মদ ইবরাহীম, নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না, মাওলানা আবদুর রব ইউসুফী, ড. আহমদ আবদুল কাদের, মাওলানা মুসা বিন ইজহার, মাওলানা ফজলুর রহমান, মাওলানা আবদুল হালিম,  ডা. মুস্তাফিজুর রহমান ইরান প্রমুখ। সম্মেলন শেষে তিন বছরের জন্য অধ্যক্ষ মাওলানা সারোয়ার কামাল আজিজী আমির ও মাওলানা মুসা বিন ইজহারকে মহাসচিব করে কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী পরিষদ ঘোষণা করা হয়।

বক্তারা বলেন, দেশের স্বাধীনতা জনগণের মৌলিক অধিকার ও ইসলামী অধিকার। ইসলামী আকিদা বিশ্বাসের বিরুদ্ধে গভীর ষড়যন্ত্র চলছে। নাগরিকদের বাকস্বাধীনতা হরণ করা হয়েছে। পশ্চিমা সংস্কৃতি ও ব্রাহ্মণ্যবাদী চেতনা প্রতিষ্ঠার চক্রান্ত চলছে। তারা ইসলামী চেতনা মুছে দিতে চায়। নাস্তিক্যবাদী রাষ্ট্র বানানোর ষড়যন্ত্র চলছে।

নেতারা আরও বলেন, নারীর নির্যাতন বেড়েছে। বিচার নেই। ন্যায়বিচার থেকে জনগণ বঞ্চিত, বিচারহীনতার সংস্কৃতি চলতে থাকলে রাষ্ট্রের কাঠামো থাকবে না। তারা বলেন, মুসলিমপ্রধান দেশে ইসলামী শিক্ষা বাধ্যতামূলক করতে হবে। নৈতিক চরিত্র ও মূল্যবোধসম্পন্ন আদর্শ নাগরিক সৃষ্টির জন্য কোরআন-সুন্নাহভিত্তিক ইসলামী কল্যাণ রাষ্ট্র প্রতিষ্ঠা করতে হবে।

এই বিভাগের আরও খবর