শিরোনাম
প্রকাশ : ১ এপ্রিল, ২০২০ ১৮:৫৭

হবিগঞ্জের হাওর অঞ্চলে জনসমাগম ঠেকানো যাচ্ছে না

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি

হবিগঞ্জের হাওর অঞ্চলে জনসমাগম ঠেকানো যাচ্ছে না

হবিগঞ্জের হাওর অঞ্চলের জনগোষ্ঠীর মধ্যে করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে নেই সচেতনতা। অবাধে হাট-বাজারে চলাচলের পাশাপাশি গণজমায়েত ও মাঠে খেলছে ফুটবল। প্রশাসন গণসচেতনা বৃদ্ধির লক্ষ্যে কাজ করে যাচ্ছে। করোনাভাইরাস প্রতিরোধে সরকার একযোগে দোকানপাট, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, অফিস-আদালত বন্ধ ঘোষণা করেছে।

পাশাপাশি সামাজিক দুরত্ব বজায় রেখে চলাচলে কথা বললেও হবিগঞ্জের হাওর অঞ্চলে ঘটছে এর ব্যত্রিক্রম। কেউ সরকারের সেই সিদ্ধান্ত মেনে চলছেন না। মাস্ক ব্যবহার বাধ্যতামূলক থাকলেও সেখানে অধিকাংশ লোকজন মাস্ক ব্যবহার করছেন না। জটলা বেঁধে অবসর সময়ে আড্ডা দিচ্ছেন। হাট বাজারগুলোতে লোকজনকে অবাধে চলাফেরা করতে দেখা যাচ্ছে।

হবিগঞ্জ জেলা শহরসহ বিভিন্ন উপজেলায় ব্যাটারি চালিত টমটম পরিবহনে পাশাপাশি একাধিক যাত্রীদের বসিয়ে নিয়ে চলাচল করছেন। এদিকে বুধবার আজমিরীগঞ্জ উপজেলার শিবপাশা পুলিশ ফাঁড়ির প্রায় ৩শ গজ দুরে একটি ফুটবল মাঠে খেলা চলছিল। ওই খেলা দেখার জন্য শত শত দর্শকরা ভিড় জমান। তাদের অধিকাংশদেরই মুখে মাস্ক ছিলো না। এ সময় তারা সাথে কথা বললে জানান, এটি গ্রাম অঞ্চল, সেখানে করোনাভাইরাসের প্রভাব পড়বে না।

এছাড়াও এলাকার অধিকাংশ মানুষ দিনমজুর ও কৃষিজীবী। বাজারে মাস্কের মূল্য বেশি থাকায় ক্রয় করতে পারছেন না তারা। পরবর্তীতে খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে ছত্রভঙ্গ করে দেয়। এ ব্যাপারে শিবপাশা ফাঁড়ির ইনচার্জ আশরাফ আহমেদ জানান, আমরা সচেতনতা বৃদ্ধি করার প্রতিদিন প্রচারণা করছি। কিন্তু গ্রাম অঞ্চলের লোকজন সচেতন হচ্ছে না।   
বিডি প্রতিদিন/আল আমীন

 


আপনার মন্তব্য