শিরোনাম
প্রকাশ : ১৩ জুলাই, ২০২০ ২০:০৯

দিনাজপুরে পানিতে ডুবে শিশুসহ তিন জনের মৃত্যু

দিনাজপুর প্রতিনিধি

দিনাজপুরে পানিতে ডুবে শিশুসহ তিন জনের মৃত্যু

দিনাজপুরের চিরিরবন্দরে ও ঘোড়াঘাটে গোসল করতে নেমে পানিতে ডুবে মারা গেছে দুই শিশু। এছাড়া নদীতে গোসল করতে নেমে পানিতে ডুবে মারা য়ায় নরেশ ঘোষ (৫২) নামে এক ব্যক্তি।

সোমবার দুপুরে দিনাজপুরের চিরিরবন্দরে আলোকডিহি ইউপির গছাহার গ্রামের বেগপাড়ায় নানার বাড়ির পাশের পুকুরে গোসল করতে গিয়ে পানিতে তলিয়ে সাঈদ (৮) নামে এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে।

 এদিকে রবিবার বিকালে বীরগঞ্জের নর্ত নদীতে গোসল করতে নেমে পানিতে ডুবে মারা য়ায় নরেশ ঘোষ (৫২) নামে এক ব্যক্তি, সোমবারেও লাশ উদ্ধার করতে পারেনি। 

অপরদিকে রবিবার বিকালে ঘোড়াঘাটে করতোয়া নদীর পাড়ে খেলার সময় পা পিছলে নদীতে পড়ে ডুবে যায় বিষ্ণু মোহন্ত (১৩) নামে এক স্কুল ছাত্র।

নিহত সাঈদ (৮) চিরিরবন্দরে আলোকডিহি ইউপির ইউনিয়নের রাসডাঙ্গা গ্রামের রফিকুল ইসলামের ছেলে। বিষ্ণু মোহন্ত (১৩) ঘোড়াঘাট উপজেলার রানীগঞ্জ বিরাহিমপুর কাচারি গ্রামের বিপুল মোহন্তের ছেলে এবং বারপাইকের গড় উচ্চ বিদ্যালয়ের ৭ম শ্রেণির ছাত্র। অপরদিকে নিহত নরেশ ঘোষ (৫২) বীরগঞ্জ উপজেলার সাতোর ইউপির ২৫ মাইল নামক এলাকার গোয়ালপাড়ার মৃত লগি ঘোষের ছেলে। 

চিরিরবন্দরের ইউপি সদস্য আমিনুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, সোমবার দুপুরে সাঈদসহ অপর এক ছেলে বাড়ির পাশের ওই পুকুরে গোসল করতে নামে। গোসলের এক পর্যায়ে হঠাৎ সাঈদ পানিতে তলিয়ে যায়। খোঁজাখুঁজির এক পর্যায়ে স্থানীয় লোকজন ওই পুকুর থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করে। 

বিষ্ণু মোহন্ত  ঘোড়াঘাটে রবিবার বন্ধুদের সাথে করতোয়া শাখা নদীর পাড়ে খেলার সময় পা পিছলে নদীতে পড়ে ডুবে যায়। বাড়ির লোকজন এবং ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা নদী থেকে ৪০ মিনিট পর বিষ্ণুর লাশ উদ্ধার করেন। 

বীরগঞ্জ থানার এসআই আনিসুর রহমান জানায়, রবিবার বিকালে নর্ত নদীতে গোসল করতে নেমে নরেশ ঘোষ তলিয়ে যায়। তাকে খোঁজাখুঁজি করেও তার লাশ পাওয়া যায়নি। তাকে উদ্ধারে রংপুর ফায়ার সার্ভিসের ডুবুরি দল পৌঁছানোর পর সোমবার দুপুর পর্যন্ত উদ্ধার অভিযান চালিয়েও তার লাশ উদ্ধার করতে পারেননি। 


বিডি-প্রতিদিন/বাজিত হোসেন


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর