শিরোনাম
প্রকাশ : ২৭ নভেম্বর, ২০২০ ১৯:৫৮
প্রিন্ট করুন printer

মোবাইল ফোনে ডেকে নিয়ে স্কুল ছাত্র হত্যা, গ্রেফতার ২

নোয়াখালী প্রতিনিধি

মোবাইল ফোনে ডেকে নিয়ে স্কুল ছাত্র হত্যা, গ্রেফতার ২

নোয়াখালীর সোনাইমুড়ীতে শাহদাত হোসেন (১৬) নামে এক শিক্ষার্থীকে মোবাইল ফোনে ডেকে নিয়ে হত্যা করে লাশ পুকুরে ফেলে দিয়েছে দুর্বৃত্তরা। পুলিশ এ হত্যাকাণ্ডের সাথে জড়িত ২ অভিযুক্তকে গ্রেফতার করেছে। 

তারা হলেন- উপজেলা নাওতলা গ্রামের মাহবুবুর রহমানের ছেলে রিয়াদ উদ্দিন (২৪), সোনাইমুড়ী পৌরসভার সোনাইমুড়ী পূর্ব পাড়া গ্রামের কামাল হোসেনের ছেলে ইকবাল হোসেন যুবরাজ (২৬)।

এদিকে আজ শুক্রবার সকালে নিহতের মা বাদী হয়ে ৬ জনকে বিবাদী করে সোনাইমুড়ী থানায় হত্যা মামলা দায়ের করেছেন।

নিহত শাহদাত হোসেন (১৫) সোনাইমুড়ী পৌরসভার ৮নং ওয়ার্ডের কাঁঠালি গ্রামের কাদির মাষ্টার বাড়ির মীর হোসেনের ছেলে এবং সোনাইমুড়ী সরকারি মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণির শিক্ষার্থী। গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় ঘরের আঙিনায় একটি পুকুর থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়।

জানা যায়, শাহদাত হোসেনের মোবাইল ফোনে বুধবার সকাল ৯টার দিকে মোবাইল ফোন দিয়ে ডেকে নিয়ে যায় একই বাড়ির জামালের ছেলে সুমন (২৮)। এরপর থেকে সাহাদাতকে খোঁজাখুঁজি করে পাওয়া যায়নি। 

গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেলে ঘরের পিছনের পুকুরে ঝোপের মধ্যে শাহদাতের পরিধানের কাপড় ভাসতে দেখে ছোট বোন মারিয়া তার মা কে জানান। পরে কাপড় ধরে টান দিলেই ভেসে ওঠে সাহাদাতের লাশ। পরে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।

সোনাইমুড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) গিয়াস উদ্দিন জানান, লাশ ময়নাতদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। নিহতের মায়ের মামলার আলোকে দুই জনকে আটক করা হয়েছে। আটক আসামিদের গ্রেফতার দেখিয়ে বিচারিক আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। অপর আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চালাচ্ছে পুলিশ।

বিডি প্রতিদিন/আবু জাফর


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৫ জানুয়ারি, ২০২১ ১৫:৪৭
প্রিন্ট করুন printer

শেখ হাসিনা ভাল থাকলে আমরা ভাল থাকব: মেয়র জাহাঙ্গীর আলম

অনলাইন ডেস্ক

শেখ হাসিনা ভাল থাকলে আমরা ভাল থাকব: মেয়র জাহাঙ্গীর আলম

গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র অ্যাডভোকেট মো. জাহাঙ্গীর আলম বলেছেন, বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা একজন মমতাময়ী মা। মায়ের পরম আদর ও ভালোবাসা দিয়ে তিনি তিলে তিলে আমাদের গড়ে তুলেছেন। শেখ হাসিনা বেঁচে থাকলে বাংলাদেশ বেঁচে থাকবে আর শেখ হাসিনা ভালো থাকলে আমরাও ভালো থাকবো। 

রবিবার বিকেলে আড়াইহাজার উপজেলার বালিয়াপাড়া স্কুল এন্ড কলেজ মাঠে ঈশান বাবু ফুটবল টুর্ণামেন্টের ফাইনাল খেলার পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এসব কথা বলেন। 

মেয়র অ্যাডভোকেট মো. জাহাঙ্গীর আলম বলেন, যুব সমাজকে খেলাধুলার প্রতি আগ্রহী করে তাদেরকে রক্ষা করতে হবে। যুব সমাজকে রক্ষা করতে পারে একমাত্র ক্রীড়া জগত। তাই বেশি বেশি করে খেলাধুলার আয়োজন করতে হবে। এসময় বালিয়াপাড়া স্কুল এন্ড কলেজ মাঠের উন্নয়নের জন্য ব্যক্তিগত তহবিল থেকে ৫০ লাখ টাকা অনুদান ঘোষণা করেন। 

দেলোয়ার হোসেন সভাপতিত্বে এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন সংসদ সদস্য নজরুল ইসলাম বাবু, লেডিস ক্লাবের সভাপতি ও ইউএইচএফপিও ডা. সায়মা আফরোজ ইভা, উপজেলা চেয়ারম্যান মুজাহিদুর রহমান হেলো সরকার, জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান সিরাজুল ইসলাম ভুইয়া, সদস্য অ্যাডভোকেট পারভীন আক্তার কবিতা, ইউপি চেয়ারমস্যান অদুদ মাহমুদ, আমান উল্যাহ আমার, আলী হোসেন, মিথিলা গ্রুপের পরিচালক মাহবুব খান হিমেল, ডা. কামরুল হাসান তুষার প্রমুখ। 

পরে মেয়র বিজয়ী দল পাকুন্ডা উদয়ন সংঘকে ঈশান বাবু ফুটবল টুর্নামেন্টের বিজয়ী ট্রফি প্রদান করেন। ফাইনাল খেলায় পাকুন্ডা উদয়ন সংঘ রূপগঞ্জ সেভেন স্টারকে ২-১ গোলে পরাজিত করে। খেলা উভয় দলে দেশি বিদেশী নামী দামী খেলোয়ারগণ অংশগ্রহণ করে। বিপুল সংখ্যক দর্শক খেলাটি উপভোগ করে। 

বিডি-প্রতিদিন/সালাহ উদ্দীন


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৫ জানুয়ারি, ২০২১ ১৫:৪১
প্রিন্ট করুন printer

দিনাজপুরে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৩

দিনাজপুর প্রতিনিধি

দিনাজপুরে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৩
দিনাজপুরে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় তিন মোটরসাইকেল আরোহী নিহত হয়েছেন এবং একটি তেলবাহি লরি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার পাশে উল্টে গেছে। 
 
ঘন কুয়াশার মাঝেই আজ সোমবার সকাল ৯টার দিকে দিনাজপুর-পঞ্চগড় মহাসড়ক দিয়ে নিজবাড়ি থেকে মোটরসাইকেল নিয়ে শ্বশুর বাড়ি যাওয়ার পথে বীরগঞ্জের ২৫ মাইল নামক স্থানে আজিজার রহমান (৪২) নামে একজন সড়ক দুঘটনায় নিহত হয়।
 
অপরদিকে, একই সময়ে দিনাজপুর-সৈয়দপুর মহাসড়কের চম্পাতলি এলাকায় একটি তেলবাহি লরি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে রাস্তার পাশে উল্টে যায়। তবে এ ঘটনায় কেউ হতাহত হয়নি।
 
অন্যদিকে, সোমবার দুপুর আড়াইটার দিকে হাকিমপুর উপজেলার হিলি-দলারদরগা রাস্তার বোয়ালদাড় এলাকায় পিকআপের ধাক্কায় অজ্ঞাতনামা দুই মোটরসাইকেল আরোহী নিহত হয়েছে। 
 
নিহত আজিজার রহমান(৪২) বীরগঞ্জ উপজেলার ভোগনগর ইউপির এলায়গা এলাকার মনছুর আলী ছেলে এবং অপর নিহত দুই মোটরসাইকেল আরোহীর পরিচয় পাওয়া যায়নি বলে পুলিশ জানায়।  
 
বীরগঞ্জের ভোগনগর চেয়ারম্যানের বদিউজ্জামান পান্না বলেন, ভোরে নিজ বাড়ি থেকে মোটরসাইকেল নিয়ে নিহত আজিজার রহমান মাহানপুর এলাকায় শ্বশুরবাড়িতে যাচ্ছিলেন। পথে দিনাজপুর-ঠাকুরগাও মহাসড়কের ২৫ মাইল এলাকায় অজ্ঞাত একটি পরিবহন তাকে চাপা দিয়ে পালিয়ে যায়।
 
স্থানীয় চেয়ারম্যানের বরাত দিয়ে বীরগঞ্জ থানার এসআই আকবর হোসেন বলেন, সকালে দুর্ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে মৃত্যু ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। যান চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে। তবে কোন গাড়ির চাপায় সে নিহত হয়েছেন সেই বিষয়টি নিশ্চিত হওয়া যায়নি।
 
দশমাইল হাইওয়ে থানার উপ-পরিদর্শক ইসরাফিল হোসেন বলেন, ঘন কুয়াশার কারণে চম্পাতলি এলাকায় উল্টে যাওয়া তেলবাহি লড়িটি উদ্ধারের কাজ চলছে। তবে এ ঘটনায় কোন হতাহত হয়নি।
 
তিনি বলেন, ডিজেলবাহি লরি উল্টে যাওয়া সেখান থেকে বেশ কিছু তেল পড়ে যায়। পরে স্থানীয় ব্যক্তিরা সেই তেল নিতে হুড়াহুড়ি করেন।
 
দশমাইল হাইওয়ে থানার ওসি ইয়ামিন বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, ঘন কুয়াশার কারণেই সড়ক দুর্ঘটনা ঘটেছে বলে প্রাথমিক ভাবে ধারণা করা হচ্ছে। 
 
এদিকে, হাকিমপুর থানার তদন্ত ওসি মোস্তাফিজার রহমান বলেন, স্থানীয় মাধ্যমে জানতে পেরে ঘটনাস্থলে গিয়ে দুইজনের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। পিকআপকে জব্দ করা এবং নিহতদের পরিচয় শনাক্ত করা সম্ভব হয়নি। পরিচয় পেলে দুইজনের লাশ আইনি প্রক্রিয়া শেষে পরিবারের হাতে হস্তান্তর করা হবে।
 
তিনি আরও জানান, হিলি বাজার থেকে মোটরসাইকেলে পার্টস নিয়ে বোয়ালদাড় হয়ে দলারদরগার দিকে যাচ্ছিল ওই দুই যুবক। এসময় তারা বোয়ালদাড়ের বিশাপাড়া নামক এলাকায় পৌঁছালে বিপরীত দিক থেকে আসা একটি পিকআপ ধাক্কা দেয় এবং ঘটনাস্থলেই দু'জনের মৃত্যু হয়।
 
 
 
বিডি-প্রতিদিন/সিফাতা আব্দুল্লাহ

আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৫ জানুয়ারি, ২০২১ ১৫:০৩
প্রিন্ট করুন printer

কুষ্টিয়ায় দুই মরদেহ উদ্ধার

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি:

কুষ্টিয়ায় দুই মরদেহ উদ্ধার

কুষ্টিয়ায় আলাদা ঘটনায় আমিরুল ইসলাম ও ক্যারাই বিশ্বাস নামে দু’জনের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার সকালে কুষ্টিয়া সদর ও কুমারখালী উপজেলা থেকে তাদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ ও স্থানীয় সুত্র জানায়, সকালে কুমারখালী উপজেলার ভড়ুয়াপাড়া মাঠের সষ্যক্ষেতে আমিরুল ইসলাম সবুর (৪৩) নামে এক কৃষকের মরদেহ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেয়। খবর পেয়ে কুমারখালী থানা পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে প্রেরণ করে। রোববার রাতে আমিরুল বাড়ি থেকে বের হয়ে আর বাড়ি ফিরেনি। শরীরে আঘাতের চিহ্ন না থাকলেও মৃত্যুর কারন অনুসন্ধান করছে পুলিশ।

এদিকে কুষ্টিয়া সদর উপজেলার সুগার মিল এলাকার মরাগড়াই খাল থেকে ক্যারাই বিশ্বাস নামে মানসিক ভারসাম্যহীন এক ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ক্যারাই বিশ্বাসের বাড়ি কুষ্টিয়া সুগার মিল এলাকার কাটাজুলাপাড়ায়। 
পুলিশ মরদেহ দু’টি উদ্ধার কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

বিডি প্রতিদিন/ মজুমদার 


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৫ জানুয়ারি, ২০২১ ১৪:৫৪
আপডেট : ২৫ জানুয়ারি, ২০২১ ১৫:০০
প্রিন্ট করুন printer

দেশের সকল দূরপাল্লার রুটে নৌযান ধর্মঘট শুরু

নিজস্ব প্রতিবেদক, বরিশাল

দেশের সকল দূরপাল্লার রুটে নৌযান ধর্মঘট শুরু
ফাইল ছবি

ঢাকার মেরিন আদালতে যাত্রীবাহী নৌযানের দুইজন মাস্টারের (চালক) জামিন বাতিলের প্রতিবাদে আজ সোমবার দুপুর ২টা থেকে ঢাকা-বরিশালসহ দেশের সকল দূরপাল্লা রুটে নৌযান ধর্মঘট শুরু করেছে নৌযান শ্রমিকরা।

বরিশাল নৌযান শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি শেখ আবুল হাসেম এ তথ্য জানিয়েছেন। 

 

বিস্তারিত আসছে...


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৫ জানুয়ারি, ২০২১ ১৪:৫২
প্রিন্ট করুন printer

গণশৌচাগারে বাস করা সেই শাহাদাত-নার্গিস দম্পতি পাচ্ছেন ঘর

বোয়ালমারী (ফরিদপুর) প্রতিনিধি:

গণশৌচাগারে বাস করা সেই শাহাদাত-নার্গিস দম্পতি পাচ্ছেন ঘর

ফরিদপুরের বোয়ালমারীর গণশৌচাগারে বাস করা শাহাদাত-নার্গিস দম্পতি অবশেষে ঘর পাচ্ছেন। গণমাধ্যমে এ নিয়ে সংবাদ প্রকাশ হলে বিষয়টি কর্তৃপক্ষের নজরে আসে। এরপর সোমবার (২৫ জানুয়ারি) সকাল ১১ টায় বোয়ালমারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ঝোটন চন্দ ওই দম্পতির সাথে দেখা করে তাদের মুজিববর্ষে প্রধানমন্ত্রীর দেয়া উপহার 'ঘর' দেয়ার প্রতিশ্রুতি দেন। 

এছাড়া কথোপকথনের সময় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ঝোটন চন্দ জানতে পারেন অন্যের নিকট থেকে শাহাদাতের ২০ হাজার টাকার ঋণ নেওয়া আছে। তিনি ঋণের ওই টাকাও পরিশোধের ব্যবস্থা করবেন বলে জানান।

ঝোটন চন্দ বলেন, আমরা সম্প্রতি তাদের (শাহাদাত দম্পতি) সম্পর্কে জেনেছি। তাদের ঘরের ব্যবস্থা করে দিয়েছি। মুজিববর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অগ্রাধিকারমূলক প্রকল্প ভূমিহীন ও গৃহহীন মানুষের জন্য নির্মিতব্য আশ্রয়ণ প্রকল্পে তাদের একটি ঘরের ব্যবস্থা করে দেব। বোয়ালমারী উপজেলার সদর ইউনিয়নের সৈয়দপুরে এই  প্রকল্প বাস্তবায়নাধীন।

এ সময় শাহাদাত তার প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে বলেন, 'হাসিনা অনেক বছর বাঁচুক। তার জন্য ঘর পাব। ইউএনও স্যার ঘরের ব্যবস্থা করিছে।' 

উল্লেখ্য, শাহাদাতের পৈতৃক বাড়ি মাগুরা জেলার মোহাম্মদপুর উপজেলায় ছিল। জন্মের সময় মাকে এবং ৬ বছর বয়সে বাবাকে হারান। পৈতৃক সম্পত্তি ছিল না, তাই দারিদ্র্যতার কষাঘাতে এবং জীবিকার তাগিদে ফরিদপুরের বোয়ালমারীতে আসেন। এরপর কাগজ কুড়িয়ে জীবন চালান। পরবর্তীতে বোয়ালমারী পৌরসভার মেয়র মোজাফফর হোসেন বাবলু মিয়া মাস্টার রোলে দৈনিক ১৬০ টাকা বেতনে বাজার ঝাড়ুদারের চাকরি দেন এবং বোয়ালমারী হেলিপোর্টে সরকারি জায়গায় থাকার ব্যবস্থা করেন। এক পর্যায়ে হেলিপোর্টে বাসা থাকা সত্বেও ঠাঁই মেলে বোয়ালমারীর টিনপট্টিতে অবস্থিত এক গণশৌচাগারে।


বিডি প্রতিদিন/হিমেল


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর