শিরোনাম
প্রকাশ : ২৮ মে, ২০২১ ১৬:০২
প্রিন্ট করুন printer

নন্দীগ্রামে গৃহবধূর আত্মহত্যা

নিজস্ব প্রতিবেদক, বগুড়া:

নন্দীগ্রামে গৃহবধূর আত্মহত্যা
Google News

বগুড়ার নন্দীগ্রাম উপজেলার পল্লীতে জেসমিন আক্তার (২৬) নামের এক গৃহবধূ স্বামীর সঙ্গে ঝগড়া করে গ্যাস ট্যাবলেট খেয়ে আত্মহত্যা করেছেন। শুক্রবার সকালে পুলিশ গৃহবধূর মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য বগুড়া জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে প্রেরণ করেছেন। বৃহস্পতিবার রাতে নন্দীগ্রাম উপজেলার ভাটরা ইউনিয়নের মণিনাগ গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে।

স্থানীয়রা জানায়, বৃহস্পতিবার সকালে স্বামী সাইদুল ইসলামকে জুয়া খেলতে নিষেধ করে স্ত্রী জেসমিন আক্তার। এনিয়ে দুইজনের মধ্যে ঝগড়া হয়। একপর্যায়ে স্বামীর ওপর অভিমান করে স্ত্রী জেসমিন আক্তার গ্যাস ট্যাবলেট খেয়ে অসুস্থ হয়ে পড়েন। পরে বিষয়টি পরিবারের লোকজন জানতে পেরে দ্রুত উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। সেখানে সুস্থ হলে সেদিনই জেসমিনকে বাড়িতে নিয়ে আসা হয়। পরে বৃহস্পতিবার রাতে গৃহবধূ জেসমিন আক্তার মারা যায়। এ খবর পেয়ে থানা পুলিশ গৃহবধূর মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য বগুড়া জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে পাঠায়।

নন্দীগ্রাম থানায় ওসি কামরুল ইসলাম বলেন, গৃহবধূর মৃতদেহ উদ্ধার করে বগুড়া জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ (শজিমেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। ময়না তদন্তের রিপোর্ট পাওয়া গেলে মারা যাওয়ার সঠিক কারণ জানা যাবে। এ ঘটনায় থানায় মামলা করা হয়েছে।

বিডি প্রতিদিন/ মজুমদার 

এই বিভাগের আরও খবর