৮ ডিসেম্বর, ২০২২ ১৪:৪২

গলাচিপায় অবিস্ফোরিত ৩ ককটেল-পেট্রোল বোমা উদ্ধার

গলাচিপা (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি

গলাচিপায় অবিস্ফোরিত ৩ ককটেল-পেট্রোল বোমা উদ্ধার

ছবি- বাংলাদেশ প্রতিদিন।

গলাচিপা আওয়ামী লীগ অফিস সংলগ্ন সদর ভূমি অফিসের পুকুর ঘাটে তিনটি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটায় দুর্বৃত্তরা। বিস্ফোরণ ঘটিয়ে দুর্বৃত্তরা ঘনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়। বিস্ফোরণের শব্দে এলাকার সাধারণ মানুষ ও ব্যবসায়ীরা আতঙ্কিত হয়ে ছোটাছুটি শুরু করে। এসময় দুর্বৃত্তরা ঘটনাস্থলে অবিস্ফোরিত ৩টি ককটেল ও ৩টি পেট্রোল বোমা ফেলে রেখে যায়। 

পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে এসব বিস্ফোরক উদ্ধার করে নিষ্ক্রিয় করে নিয়ে যায়। ঘটনাটি ঘটেছে বুধবার (০৭ ডিসেম্বর) রাত পৌনে দশটার দিকে গলাচিপা পৌরএলাকায়। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন এএসপি (গলাচিপা সার্কেল) মো. মোর্শেদ তোহা ও গলাচিপা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মহিউদ্দিন আল হেলাল।

এদিকে, এ ঘটনায় গলাচিপা থানায় বৃহস্পতিবার অজ্ঞাত ৩০-৩৫ জনের নামে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। এ মামলায় চিকনিকান্দি ইউনিয়নের যুবদলের কর্মী মাসুদ রানাকে গ্রেফতার দেখানো হয়েছে। ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেন গলাচিপা থানার অফিসার ইন চার্জ (ওসি) শোনিত কুমার গায়েণ। 

ককটেল বিস্ফোরণের বিষয়ে গলাচিপা সদর ইউপি ভূমি অফিসের সহকারী কর্মকর্তা মো. মিলন মিয়া বলেন, বুধবার রাত পৌনে দশটার দিকে অফিসে কাজ করছিলাম। এসময় পুকুর ঘাটে বিকট আওয়াজ হয়। প্রথম ভাবছি বিদ্যুতের ট্রান্সফরমার বিস্ফোরণ হয়। পরে বুঝতে পারি অন্য কোন ঘটনা। এরপর পুলিশ ঘটনাস্থলে আসলে জানতে পারি এখানে তিনটি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটে। 

এ প্রসঙ্গে গলাচিপা থানার অফিসার ইন চার্জ শোনিত কুমার গায়েণ বলেন, আমরা বিস্ফোরণের খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যাই। গলাচিপা সদর ভূমি অফিসের পুকুর ঘাটের কাছে তিনটি অবিস্ফোরিত ককটেল ও তিনটি পেট্রোল বোমা উদ্ধার করা হয়। এর আগে তিনটি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটে বলে প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিছেন। এ ঘটনায়  জিজ্ঞাসাবাদের জন্য একজনকে আটক করা হয়েছে। তদন্তের পর বিস্তারিত বলা যাবে। 


বিডি-প্রতিদিন/আব্দুল্লাহ
 

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর