Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ৮ নভেম্বর, ২০১৯ ১৪:৩০
আপডেট : ৮ নভেম্বর, ২০১৯ ১৮:১২

ঘূর্ণিঝড় বুলবুল

বরিশালের বিভিন্ন স্থানে মাইকিং করে জনগণকে নিরাপদে যাওয়ার আহ্বান

নিজস্ব প্রতিবেদক, বরিশাল

বরিশালের বিভিন্ন স্থানে মাইকিং করে জনগণকে নিরাপদে যাওয়ার আহ্বান

গভীর বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট ঘূর্ণিঝড় ‘বুলবুল’ এর ক্ষতিকর প্রভাব মোকাবেলায় বরিশালে জরুরি সভা করেছে জেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটি।

এছাড়া, উপকূলের সর্বত্র মাইকিং করে জনসাধারণকে সতর্ক করছে ঘূর্ণিঝড় প্রস্তুতি কেন্দ্রের (সিপিপি) স্বেচ্ছাসেবকরা। 

আবহাওয়া বিভাগের সব শেষ তথ্যানুযায়ী, ঘূর্নিঝড় ‘বুলবুল’ শনিবার দুপুর নাগাদ সুন্দরবন এবং খুলনা উপকূল অতিক্রম করে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের দিকে ধাবিত হতে পারে। বাংলাদেশের উপকূলে ঘূর্ণিঝড় আঘাত হানলে বরিশাল অঞ্চলেও এর প্রভাব পড়তে পারে।

এ বিষয়ে জনগণকে সচেতন করে তাদের জানমাল নিরাপদে রাখতে শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টায় জরুরি সভা করেছে বরিশাল জেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটি। 

জেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির সভাপতি ও জেলা প্রশাসক এসএম অজিয়র রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত জরুরি সভায় জেলার বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি দফতরের কর্মকর্তা এবং বেসরকারি বিভিন্ন উন্নয়ন সংস্থার প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন। 

সভায় জেলা প্রশাসক জানান, দুর্যোগকালীন সময়ে জনগণের নিরাপদ আশ্রয়ের জন্য বরিশাল জেলার ১০ উপজেলায় ২৩২টি সাইক্লোন শেল্টার প্রস্তুত রাখা হয়েছে। এছাড়া প্রয়োজনে সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এবং সরকারি অবকাঠামো দুর্যোগকালীন সময়ে আশ্রয় কেন্দ্র  হিসেবে ব্যবহৃত হতে পারে।

সভায় জনগণকে আবহাওয়ার গতিবিধি এবং বিভিন্ন বুলেটিনের উপর নজর রাখাসহ সচেতন হওয়ার অনুরোধ জানানো হয়। ঘূর্ণিঝড় আঘাত হানার উপক্রম হলে তার আগেই নিজ বাড়িতে অবস্থান না করে সরকারি নিরাপদ আশ্রয়ে চলে যেতে জনসাধারণকে অনুরোধ জানানো হয়। দুর্যোগে আক্রান্ত হলেও সবগুলো সাইক্লোন শেল্টারে পর্যাপ্ত খাদ্য মজুদ রাখা হয়েছে বলে জেলা প্রশাসক জানান।

এদিকেম ‘ঘূর্ণিঝড়’ বুলবুল সম্পর্কে জনগণকে সচেতন করতে উপকূলের বিভিন্ন স্থানে এবং চরাঞ্চলে মাইকিং করছে ঘূর্ণিঝড় প্রস্তুতি কর্মসূচি (সিপিপি) স্বেচ্ছাসেবকরা। ঘূর্ণিঝড় বিষয়ে জনসাধারণকে অবগত করার জন্য ইতোমধ্যে সংশ্লিষ্ট স্থানসমূহে বিশেষ পতাকা টানানো হয়েছে।

এছাড়াও, বরিশাল জেলায় সিপিপি’র ৬ হাজার ১৫০জন কর্মী ছাড়াও রোভার স্কাউট ও গার্লস গাইডসহ বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনকে সার্বক্ষণিক প্রস্তুত রাখা হয়েছে বলে সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন। 

দেশের উপকূলীয় ১৩ জেলার ৪১ উপজেলায় ৩৫৫টি ইউনিয়নে সিপিপি’র ৩ হাজার ৭০১টি ইউনিটে স্বেচ্ছাসেবক রয়েছে ৫৫ হাজার ৫১৫ জন। এর মধ্যে পুরুষ ৩৭ হাজার ১০ জন ও নারী ১৮ হাজার ৫০৫ জন।

বিডি প্রতিদিন/কালাম


আপনার মন্তব্য