শিরোনাম
প্রকাশ : ২১ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ০৯:৩৯
আপডেট : ২১ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ০৯:৫৯

আন্তর্জাতিক শান্তি দিবসে মাহবুবুল এ খালিদের গান

অনলাইন ডেস্ক

আন্তর্জাতিক শান্তি দিবসে মাহবুবুল এ খালিদের গান
মাহবুবুল এ খালিদ। ফাইল ছবি

আজ ২১ সেপ্টেম্বর। আন্তর্জাতিক শান্তি দিবস। পৃথিবী থেকে যুদ্ধ, হিংসা, আগ্নেয়াস্ত্র প্রয়োগ বন্ধ করে বিশ্বের সব দেশ ও মানুষের মধ্যে শান্তির আদর্শ শক্তিশালী করার উদ্দেশ্যে প্রতি বছর ২১ সেপ্টেম্বর বিশ্বব্যাপী দিবসটি পালন করা হয়ে থাকে। অন্যান্য দেশের মতো আজ বাংলাদেশেও আন্তর্জাতিক শান্তি দিবস পালিত হচ্ছে।

উল্লেখ্য, ১৯৮১ সালে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদে গৃহীত প্রস্তাব অনুসারে প্রতি বছরের সেপ্টেম্বর মাসের তৃতীয় মঙ্গলবার অধিবেশন শুরু হওয়ার দিনটিকে ‘আন্তর্জাতিক শান্তি দিবস’ হিসেবে স্বীকৃতি দেয়া হয়েছিল। পরে ২০০২ সাল থেকে প্রতি বছরের ২১ সেপ্টেম্বর ‘আন্তর্জাতিক শান্তি দিবস’ হিসেবে উদযাপনের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

‘আন্তর্জাতিক শান্তি দিবস’ পালনের মূল উদ্দেশ্য একটি যুদ্ধ-বিহীন বিশ্ব প্রতিষ্ঠা করা। মানুষে মানুষে ভ্রাতৃত্ব ও বন্ধুত্বের অমর বার্তা ছড়িয়ে দেয়া।

যুদ্ধ-বিবাদ ভুলে শান্তি প্রতিষ্ঠার অভিপ্রায়ে অগণিত সাহিত্যিক অসংখ্য সাহিত্যকর্ম রচনা করেছেন। যার মধ্যে রয়েছেন মানবতাবাদী কবি, গীতিকার ও সুরকার মাহবুবুল এ খালিদ। বিশ্বশান্তির আহ্বান জানিয়ে ‘যুদ্ধ নয় শান্তি চাই’ শিরোনামে একটি গান লিখেছেন তিনি। গানটির সুর ও সংগীতায়োজন করেছেন প্রয়াত আহমেদ ইমতিয়াজ বুলবুল। আর এতে কণ্ঠ দিয়েছেন ক্লোজআপ ওয়ান তারকা রাজীব।  

গানটি মাহবুবুল এ খালিদের সংগীত বিষয়ক ওয়েবসাইট খালিদ সংগীত ডটকম (www.khalidsangeet.com) -এ প্রকাশিত হয়েছে। 

“আমরা মানুষ আমরা ভাই/আর যুদ্ধ নয় শান্তি চাই/দেশে দেশে গড়বো মৈত্রী/শান্তি সুখে বাঁচতে চাই” এমন কথামালায় ‘যুদ্ধ নয় শান্তি চাই’ গানটি শুরু হয়েছে। এই গানের মাধ্যমে দেশে দেশে, মানুষে মানুষে যুদ্ধ-বিবাদ ভুলে বিশ্বশান্তি প্রতিষ্ঠার আহ্বান জানানো হয়েছে। 

এ প্রসঙ্গে গীতিকার ও সুরকার মাহবুবুল এ খালিদ বলেন, অন্যায়ভাবে অন্যের সম্পদ দখলের আকাঙ্ক্ষা থেকেই যুদ্ধ-বিবাদ সৃষ্টি হয়। বিশ্বে কোনো কিছুর কমতি নাই। সবাই যদি নিজের মেধা খাটিয়ে পৃথিবীর অমূল্য সম্পদকে কাজে লাগায়, তবে বিশ্ব হবে শান্তির আবাস। আসলে যুদ্ধ কখনো শান্তি বয়ে আনতে পারে না। যুদ্ধে পৃথিবীর অমূল্য সম্পদ ও মেধার অপচয় হয়। যুদ্ধ মানেই কারো না কারো পরাজয়। 

তাই আমরা সবাই যেন যুদ্ধ-বিবাদ ভুলে ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে একসঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করি। এভাবে সবাই এক হলেই পৃথিবীতে শান্তি নেমে আসবে। এই গানের মাধ্যমে যুদ্ধের অসারতা ও ভয়াবহতা বর্ণনার পাশাপাশি এক শান্তিময় পৃথিবী গড়ে তোলার আহ্বান জানানো হয়েছে। আশা করছি গানটি সবার কাছে গ্রহণযোগ্য হবে।

উল্লেখ্য, মাহবুবুল এ খালিদের লেখা গান ও কবিতা বিভিন্ন শিক্ষামূলক বিষয়ে সমৃদ্ধ। তার লেখায় মূর্ত হয়ে ওঠে মানুষের প্রতি মানুষের ভালোবাসা, শ্রদ্ধা, মানুষের দুঃখ-কষ্ট, সমস্যা-সম্ভাবনা, দেশীয় ও সামাজিক বিভিন্ন আচার-অনুষ্ঠান ও উৎসব, বিভিন্ন ধর্মের গুরুত্বপূর্ণ পর্ব, খেলাধুলা, প্রকৃতি, দার্শনিকতা ইত্যাদি অসংখ্য বিষয়।
সম্প্রতি মাহবুবুল এ খালিদের লেখা ও সুরে করোনা সচেতনতামূলক গান ‘করোনা কে ভয় করো না’ ব্যাপক শ্রোতাপ্রিয় হয়েছে।

বিডি প্রতিদিন/আবু জাফর


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর