Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ২১ এপ্রিল, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ২০ এপ্রিল, ২০১৯ ২৩:৪৭

আজ পবিত্র শবেবরাত

নিজস্ব প্রতিবেদক

আজ পবিত্র শবেবরাত

আজ রবিবার দিবাগত রাত পবিত্র শবেবরাত বা সৌভাগ্যের রাত। হিজরি সনের শাবান মাসের দিবাগত ১৪ তারিখ রাতটি মুসলিম বিশ্বে সৌভাগ্য রজনী হিসেবে পালিত হয়ে থাকে। এই পুণ্য রজনীতে বান্দাদের জন্য মহান আল্লাহতায়ালা বিশেষ রহমতের দরজা খুলে দেন। এ রাতে বান্দাদের গুনাহ মাফ করে দেওয়াসহ আল্লাহর হুকুমে নতুনভাবে ভাগ্য লিপিবদ্ধ করা হয়ে থাকে। ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা পুণ্যময় ও মহিমান্বিত এ রাতটি ইবাদত-বন্দেগির মাধ্যমে কাটান। মহান আল্লাহর দরবারে জীবনের সব ভুলভ্রান্তি, পাপ-তাপের জন্য গভীর অনুশোচনার পাশাপাশি আগামী দিনগুলোতে গুনাহ থেকে বেঁচে থাকাসহ দুনিয়া ও আখিরাতের সুখ, শান্তি, উন্নতি ও সমৃদ্ধির জন্য রোনাজারি করে কাটাবেন। পবিত্র শবেবরাত উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও জাতীয় নেতৃবৃন্দ দেশবাসীকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন। তারা পৃথক বাণীতে দেশ, জাতি ও মুসলিম বিশ্বের অব্যাহত সুখ, শান্তি, কল্যাণ,  উন্নতি ও সমৃদ্ধি কামনা করেছেন। এ উপলক্ষে রাজধানীর সড়কদ্বীপগুলো কলেমাখচিত পতাকা দিয়ে সাজানো হয়েছে। এ উপলক্ষে আগামীকাল সোমবার দেশে সরকারি ছুটি ঘোষণা করা হয়েছে। শবেবরাত ফারসি শব্দ। শব অর্থ রাত। বরাত অর্থ সৌভাগ্য। আরবিতে বলা হয় ‘লাইলাতুল মোবারাকা’ বা ‘লাইলাতুল বরাত’। মোবারাকা অর্থ বরকতময়।

যথাযোগ্য ধর্মীয় মর্যাদা ও ভাবগম্ভীর পরিবেশে রাতটি পালনের জন্য ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা এরই মধ্যে প্রস্তুতি নিয়েছেন। এ উপলক্ষে আজ রাতে মসজিদে মসজিদে বিশেষ ওয়াজ ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়েছে। ইসলামিক ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে আজ রাতব্যাপী বয়ান, ওয়াজ মাহফিল, দোয়া ও বিশেষ মোনাজাতের আয়োজন করা হয়েছে। ফজরের নামাজের পর অনুষ্ঠিত হবে আখেরি মোনাজাত। নফল নামাজ আদায়, পবিত্র কোরআন তিলাওয়াত, জিকির-আজকারের জন্য অধিকাংশ মসজিদ রাতব্যাপী খোলা রাখা হবে। অনেকে এ রাতে মরহুম পিতা-মাতা ও আত্মীয় পরিজনের কবর জিয়ারত করে তাদের রুহের মাগফিরাত কামনা করবেন। অনেকে গরিব-দুঃখীদের মাঝে খাদ্য বিতরণ ও দান-খয়রাত করবেন। এ উপলক্ষে অনেকে নফল রোজাও রাখেন। সামাজিক প্রথা অনুযায়ী অনেকেই আত্মীয় পরিজন ও পাড়া-প্রতিবেশীদের বাড়িতে রুটি ও হালুয়াসহ নানা মিষ্টান্ন পাঠান।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর