শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ১৫ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ২৩:১২

বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ আজ আফগানিস্তান

মেজবাহ্-উল-হক

বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ আজ আফগানিস্তান

‘খুবই ভালো লাগতো যদি আমরা কোনো উইকেট না হারিয়ে জিততে পারতাম!’- গতকাল কিছুটা হতাশা  থেকেই যেন বললেন বাংলাদেশের ব্যাটিং কোচ নেইল ম্যাকেঞ্জি! জিম্বাবুয়ে বোলিং আক্রমণের বিরুদ্ধে বাংলাদেশের ব্যাটিং লাইনআপের  ভেঙে পড়ার দৃশ্য তিনি ভুলতে পারছেন না! আজ বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানদের সামনে আরও বড় পরীক্ষা। আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে স্পিন ত্রয়ী রশিদ খান,  মোহাম্মদ নবি ও মুজিব উর রহমানকে সামলাতে হবে! টি-২০তে রশিদ খানের দলটি খুবই ভয়ঙ্কর। তারা গত বছর তিন ম্যাচের সিরিজে বাংলাদেশকে  হোয়াইটওয়াশ করেছে। টি-২০তে তারা বাংলাদেশের বিরুদ্ধে মাত্র এক ম্যাচে হেরেছে। সেটাও ২০১৪ সালে। এখন তারা অনেক বেশি আত্মবিশ্বাসী এক দল। তবে প্রথম ম্যাচে জিম্বাবুয়েকে হারিয়ে বাংলাদেশও ফিরে পেয়েছে মোমেন্টাম। তাই নিকট অতীতের দুঃস্মৃতি ভুলে আজ নতুনভাবে নতুন করে আত্মবিশ্বাসী নিয়ে মাঠে নামছেন সাকিবরা। প্রতিপক্ষ আফগানিস্তানের শক্তিমত্তা ও দুর্বলতা সম্পর্কে পুঙ্খানুপুঙ্খ বিশ্লেষণ করা হয়েছে। বাংলাদেশ দলের প্রতিনিধি হিসেবে গতকাল মিডিয়াকে ম্যাকেঞ্জি বলেন, ‘আমরা আমাদের পরিকল্পনা অনুযায়ী খেলার চেষ্টা করব। আমরা জানি, তারা (আফগানিস্তান) কি করার ক্ষমতা রাখে! নিজেদের সেরা খেলাটা প্রদর্শন করাই হবে আমাদের চ্যালেঞ্জ। তবে এটা ঠিক যে নিজের প্রতি বিশ্বাস না থাকলে কেউ স্বাভাবিক খেলাটা  খেলতে পারে না। আমার বিশ্বাস, সবাই ইতিবাচকভাবেই খেলতে নামবেন এবং নিজের  সেরাটা উজাড় করে দেবেন।’ ম্যাকেঞ্জি তো বললেন, ব্যাটসম্যানদের পরিকল্পনা নিয়ে। কিন্তু বাংলাদেশের বোলারদের চ্যালেঞ্জ জানানোর জন্য প্রস্তুত হয়ে আছেন আফগান ব্যাটসম্যানরা। টি-২০ ফরম্যাটটা যে ভীষণ পছন্দ আফগানদের। এই ফরম্যাটে সর্বোচ্চ স্কোরও কিন্তু তাদেরই (আয়ারল্যান্ডের বিরুদ্ধে ২৭৮ রান)।

 একদিন আগে যে জিম্বাবুয়ের বোলারদের বিরুদ্ধে ধুঁকেছে টাইগাররা সেই বোলারদের বিরুদ্ধেই গতকাল নিজের প্রথম ম্যাচে ১৯৭ রান করেছিল আফগানরা। তারপরও ব্যাটিংয়ে রশিদ খানদের দুর্বলতা আছে-  সেটা স্পিনে। পেস বোলিংয়ের বিরুদ্ধে তারা যতটা স্বাচ্ছন্দ্য ততটা নয় স্পিনে। আজ তাই স্পিন দিয়েই জাজাই-নবিদের ঘায়েল করার পরিকল্পনা করছে বাংলাদেশ। বোলিং, ব্যাটিং ও ফিল্ডিং তিন বিভাগেই সতর্ক থাকবে স্বাগতিকরা। ফর্মের তুঙ্গে থাকা আফগানিস্তানকে তাদের সেরা ফর্মেটে হারাতে হলে সাকিবদের সেরা পারফম্যান্স প্রদর্শন করার বিকল্প নেই!


আপনার মন্তব্য