শিরোনাম
প্রকাশ : শনিবার, ২৪ এপ্রিল, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৩ এপ্রিল, ২০২১ ২৩:২১

চ্যালেঞ্জ এখন বোলারদের

বাংলাদেশ ৫৪১/৭ (ইনিংস ঘোষণা), শ্রীলঙ্কা ২২৯/৩

মেজবাহ্-উল-হক

চ্যালেঞ্জ এখন বোলারদের
পাল্লেকেলে টেস্টে ওশাদা ফার্নান্দোকে আউট করার পর তাসকিনকে ঘিরে সতীর্থদের উচ্ছ্বাস -এএফপি

প্রথম দুই দিনের মতো পাল্লেকেলেতে তৃতীয় দিনে একাধিপত্য ছিল না বাংলাদেশের। টাইগাররা ৭ উইকেটে ৫৪১ রানে ইনিংস ঘোষণার পর ব্যাট করতে নেমে লঙ্কানরা ৩ উইকেটে করেছে ২২৯ রান। তবে এখনো বাংলাদেশের প্রথম ইনিংসের চেয়ে ৩১২ রানে পিছিয়ে স্বাগতিকরা। ফলোঅন এড়াতে আরও ১১৩ লাগবে তাদের। বাংলাদেশের ব্যাটসম্যানরা প্রথম ইনিংসে তাদের কাজটা দাপটের সঙ্গেই করেছেন, এখন দায়িত্ব বোলারদের। পাল্লেকেলের উইকেট এখনো ব্যাটসম্যানদের জন্য স্বর্গ। যদিও শেষ বিকালে উইকেটে বেশ কিছু আনইভেন বাউন্স দেখা গেছে। কিছুটা টার্নও ছিল। তবে আজকের প্রথম সেশনই ম্যাচের গতি পরিবর্তন করে দিতে পারে। বাংলাদেশের ইনিংস ঘোষণার পর লঙ্কানরাও ব্যাটিংয়ে দৃঢ়তা দেখিয়েছেন। অধিনায়ক দিমুথ করুণারত্নে অপরাজিত রয়েছেন ৮৫ রানে। হাফ সেঞ্চুরি করে আউট হয়েছেন ওপেনার লাহিরু থিরিমানে। কাল লঙ্কানদের ব্যাটিংয়ের শুরুটা হয়েছিল দুর্দান্ত। প্রথম উইকেট জুটিতেই ১১৪ রান। লাইনলেন্থে বোলিং করেও একটা সময় হতাশ হয়ে যাচ্ছিলেন টাইগার বোলাররা। ম্যাচের ৩৯তম ওভারে ব্রেকথ্রু এনে দেন মেহেদী হাসান মিরাজ। এরপর ওয়ানডাউনে নামা ওসাদা ফার্নান্দোর উইকেট তুলে নেন পেসার তাসকিন আহমেদ। শ্রীলঙ্কার সাবেক অধিনায়ক অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুসকে বোকা বানিয়েছেন স্পিনার তাইজুল ইসলাম। গতকাল দিমুথ করুণারত্নকে আউট করার দারুণ একটি সুযোগ হাত ছাড়া করেছেন তিনি। লঙ্কান অধিনায়ক ৮০ রানের মাথায় ক্যাচ তুলে দিয়েছিলেন, তা লুফে নিতে ব্যর্থ হয়েছেন তাইজুল। তবু তৃতীয় দিন শেষে এগিয়েই রয়েছেন টাইগাররা। গতকাল সকালের সেশনে মুশফিকুর রহিম ও লিটন দাস হাফ সেঞ্চুরি করে একটি রেকর্ড গড়েছেন। টেস্টে বাংলাদেশের ২২ বছরের ইতিহাসে এই প্রথম ঘটনা এক ইনিংসে প্রথম ছয় ব্যাটসম্যানের মধ্যে পাঁচজনের পঞ্চাশোর্ধ্ব ইনিংস। নাজমুল হোসেন শান্ত ও মুমিনুল হকের সেঞ্চুরির পর ব্যাটিংয়ে দৃঢ়তা দেখিয়েছেন মুশফিক-লিটন। শেষ পর্যন্ত ৬৮ রানে অপরাজিত ছিলেন মিস্টার ডিপেন্ডেবল। আর কাঁটায় কাঁটায় ৫০ রান করে আউট হয়ে যান লিটন। এই টেস্টের ভাগ্য এখন অনেকটাই বোলারদের হাতে। শেষের দুই দিনে উইকেট ফেটে যেতে পারে। তখন ব্যাটসম্যানদের জন্য রান করা কঠিন হয়ে যাবে। যদিও বাকি আছে আর মাত্র দুই দিন। তবে আজ প্রথম সেশনেই যদি তাসকিন-মিরাজ-তাইজুলরা লঙ্কানদের কয়েকটি উইকেট নিয়ে ব্যাকফুটে পাঠিয়ে দিতে পারেন তাহলে বদলে যেতে পারে ম্যাচের চিত্র। প্রথম ইনিংসে বড় লিড পেলে টাইগারদের জন্য কাজটা অনেক সহজ হয়ে যাবে। তাই চ্যালেঞ্জ এখন বোলারদের।

এই বিভাগের আরও খবর