শিরোনাম
প্রকাশ : ২৩ জুলাই, ২০১৯ ১৩:৩১

রাহুলের পর প্রিয়াঙ্কাই কংগ্রেস সভানেত্রী হওয়ার যোগ্য

অনলাইন ডেস্ক

রাহুলের পর প্রিয়াঙ্কাই কংগ্রেস সভানেত্রী হওয়ার যোগ্য

প্রাক্তন সভাপতি রাহুল গান্ধী পদত্যাগ করার পরে প্রায় দু’মাস কেটে গেলেও তার জায়গায় বসানোর মতো কাউকে খুজে পায়নি কংগ্রেস। দলের মধ্যে ক্রমশ রাহুলের বোন প্রিয়াঙ্কা গান্ধীকে সভানেত্রী করার দাবি জোরদার হয়ে উঠছে। এবার সেই দাবির সঙ্গে গলা মেলালেন অভিনেতা তথা রাজনীতিক শত্রুঘ্ন সিনহা। সোনভদ্রে হত্যাকাণ্ডের পরে প্রিয়াঙ্কা যে ভূমিকা নিয়েছেন, তাতে অভিনেতার মনে হয়েছে, তিনিই কংগ্রেসের পরবর্তী সভানেত্রী হতে পারেন।

রাহুল পদত্যাগ করার সময় বলেই দিয়েছিলেন, কংগ্রেস যেন গান্ধী পরিবারের কাউকে দলের শীর্ষস্থানে না বসাতে চেষ্টা করে। কিন্তু কংগ্রেসের ভয়, নেহরু গান্ধী পরিবারের কোনও নেতা ছাড়া কেউ দলকে ঐক্যবদ্ধ রাখতে পারবেন না। কংগ্রেসের বর্ষীয়ান নেতা নটবর সিং সম্প্রতি স্পষ্ট বলেছেন, গান্ধী পরিবারের সদস্য বাদে অপর কেউ কংগ্রেসের সভাপতি হলে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে দল টুকরো টুকরো হয়ে যাবে। শত্রুঘ্ন সিনহা প্রিয়াঙ্কার সঙ্গে প্রয়াত প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধীর তুলনা করেন। তার কথায়, সোনভদ্রয় গণহত্যার পর আমরা যে জনপ্রিয় ও সাহসী প্রিয়াঙ্কাকে দেখলাম, তাতে গ্রেট ম্যাডাম গান্ধীর কথা মনে পড়ে গেল। তিনিও এইভাবে বিপদের সময় মানুষের পাশে দাঁড়াতেন।

টুইট করে অভিনেতা বলেন, প্রিয়াঙ্কা দৃঢ় মানসিকতার সঙ্গে কাজ করেছেন। যখন গ্রেফতার হয়েছেন, তখনও তার মুখে ছিল হাসি। তাকে যেভাবে আটকে রাখা হয়েছিল, তা একেবারেই অবাঞ্ছিত। সেই পরিস্থিতিতে তিনি মাথা ঠান্ডা রেখেছেন। এরপরে শত্রুঘ্ন লেখেন, প্রিয়াঙ্কার কাছে আমার বিনীত অনুরোধ, আপনি কংগ্রেসের সভানেত্রী হিসাবে সকলকে পথ দেখান। উল্লেখ্য, গত লোকসভা ভোটে শোচনীয় পরাজয়ের মুখে পড়ে কংগ্রেস। পরাজয়ের দায় স্বীকার করে ইস্তফা দিয়েছেন রাহুল। তখন থেকেই দলে দাবি উঠছে, ‘প্রিয়াঙ্কা লাও, কংগ্রেস বাঁচাও!’ সূত্র : দ্য ওয়াল

বিডি-প্রতিদিন/শফিক


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর