Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ১৯ অক্টোবর, ২০১৯ ১১:১৮

এক নজরে তেজস বনাম জেএফ-১৭ থাণ্ডার

অনলাইন ডেস্ক

এক নজরে তেজস বনাম জেএফ-১৭ থাণ্ডার

ভারতীয় বিমান বাহিনীর অস্ত্র ভাণ্ডারের সবথেকে শক্তিশালী লাইট কমব্যাট এয়ারক্রাফ্ট তেজাস। ভার‍তের হাতে থাকা এই যুদ্ধবিমান ইতোমধ্যেই চিন্তার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে পাকিস্তান ও চীনের। কারণ চীন ও পাকিস্তানের যৌথভাবে তৈরি করা যুদ্ধবিমান জেএফ-১৭ থাণ্ডার কতটা পাল্লা দিতে পারবে ভারতীয় যুদ্ধ বিমান তেজসের সঙ্গে তা নিয়ে শুরু হয়েছে জল্পনা।

এক নজরে দেখে নেওয়া যাক কতটা শক্তিশালী তেজস ও জেএফ-১৭ থাণ্ডার:

এলসিএ তেজস: 
ভারতের এই লাইট কমব্যাট এয়ারক্রাফটে রয়েছে প্রায় সমস্ত রকমের অত্যাধুনিক প্রযুক্তি। ফ্লাই বাই ওয়্যার ফ্লাইট কনট্রোল সিস্টেম, অ্যাডভান্স ডিজিটাল ককপিট, মাল্টিমোড ব়্যাডার, ইন্ট্রিগ্রেটেড ডিজিটাল অ্যাভিওনিস সিস্টেম, ফ্ল্যাট রেটেড ইঞ্জিন। এছাড়া তেজাসে রয়েছে নাইট ভিসন কমপ্যাটিব্যাল গ্লাস ককপিট। তেজসের নির্মাতা ব্যাঙ্গালোরের সংস্থা এয়ারক্রাফটের নির্মাতা অ্যাডবান্স সিস্টেম ইন্ট্রিগ্রেশন অ্যাণ্ড এভালিউশন অর্গানাইজেশন(এএসআইইও)। সংস্থার পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, তেজাসে রয়েছে ব়্যাডার ওয়ার্নার রিসিভার, জ্যামার, লেজার ওয়ার্নার, মিশাইল অ্যাপ্রোচ ওয়ার্নার।

জেএফ-১৭ থাণ্ডার: 
চীন ও পাকিস্তানের যৌথ প্রচেষ্টায় তৈরি করা হয়েছে জেএফ-১৭ থাণ্ডার এয়ারক্রাফট। এর গঠন হল সেমি-মোনোকউ এবং এই এয়ারক্রাফটটি চার হাজার ঘণ্টা বা ২৫ বছর কাজ করতে সক্ষম। জেএফ-১৭ তে রয়েছে ফাইট কনট্রোল সিস্টেম, কমপ্রাইসিং কনভেনশানাল কন্ট্রোল রোল অ্যাক্সিস, ফ্লাই বাই ওয়্যার সিস্টেম। রাশিয়ান ক্লিমোভ আরডি-৯৩ টারবোফ্যান ইঞ্জিনও ব্যবহার করা হয়েছে এই এয়ারক্রাফটে।


বিডি প্রতিদিন/ ওয়াসিফ


আপনার মন্তব্য