শিরোনাম
৪ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ ১১:০৬

আইএমএফ’র শর্ত কল্পনাতীত, পাকিস্তান প্রধানমন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক

আইএমএফ’র শর্ত কল্পনাতীত, পাকিস্তান প্রধানমন্ত্রী

শেহবাজ শরিফ। ছবি: সংগৃহীত

আর্থিক ভরাডুবির মুখে দাঁড়িয়ে পাকিস্তান। এই ভয়াবহ পরিস্থিতি থেকে দেশকে আপাতভাবে স্বস্তি দিতে পারে একমাত্র আন্তর্জাতিক অর্থ তহবিল (আইএমএফ)-এর ৭০০ কোটি ডলারের ঋণের প্যাকেজ। কিন্তু আইএমএফ- এর পক্ষ থেকে বহু আগে থেকেই স্পষ্ট করে দেওয়া হয়েছিল যে, ওই ঋণ পেতে হলে মানতে হবে বেশ কিছু কঠিন শর্ত। সেই সব শর্তকে কার্যত ‘কল্পনার বাইরে’ বলে আখ্যা দিলেন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী শেহবাজ শরিফ।

মঙ্গলবার ইসলামাবাদ পৌঁছে পাকিস্তান সরকারের শীর্ষ কর্মকর্তাদের সঙ্গে দফায় দফায় বৈঠক করেছেন আইএমএফ’র প্রতিনিধিরা। বলা হচ্ছে, প্রাথমিকভাবে পাকিস্তান সরকার নবম পর্যালোচনার শর্ত মানলে ১.২ কোটি ডলার ঋণ পাবে। এর মধ্যেই এক টিভি চ্যানেলকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে আইএমএফ’র শর্তাবলি নিয়ে মুখ খুললেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী শেহবাজ শরিফ। তিনি বলেছেন,“আমি পুরো বিষয়টি নিয়ে (ঋণের প্যাকেজ) বিস্তারিত কিছু বলতে চাচ্ছি না। তবে এটুকু বলতে পারি যে আমরা এক অকল্পনীয় আর্থিক চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি দাঁড়িয়ে রয়েছি। আইএমএফ’র সঙ্গে যেসব শর্তে রাজি হতে হবে, তা ভাবনার বাইরে। কিন্তু আমাদের কাছে অন্য রাস্তা খোলা নেই। তাদের শর্ত আমাদের মানতেই হবে।”

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক পাকিস্তান সরকারের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, সরকারের কাছে আয়কর ছাড় তুলে দেওয়া আর জ্বালানি-সহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে ভর্তুকি বন্ধের শর্ত রেখেছে আইএমএফ। যেগুলো মেনে নিলে সরকার-বিরোধী ক্ষোভের আগুন সামাল দেওয়া যাবে না বলেই মনে করছেন শেহবাজ শরিফ। আগামী বছরের অক্টোবরে দেশে সাধারণ নির্বাচন। সামনের মাসে রয়েছে পাকিস্তান ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলির বেশ কয়েকটি আসনে উপনির্বাচন। এই পরিস্থিতিতে আইএমএফ’র যাবতীয় শর্ত মেনে নেওয়া ঝুঁকিপূর্ণ হবে জেনেও তা মানতে কার্যত তারা বাধ্য বলে ইঙ্গিত দিয়েছেন শেহবাজ শরিফ। সূত্র:  আল জাজিরা, রয়টার্স

বিডি প্রতিদিন/কালাম

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর