শিরোনাম
প্রকাশ : সোমবার, ২৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ২৩:৩২

অন্য খবর

মানুষের রক্তেই সোনা!

মৌলিক পদার্থের মধ্যে সোনার অভাব নেই পৃথিবীতে। এর রং হলুদ। যে প্রোট-ইন্দো-ইউরোপিয়ান ‘ঘেল’ শব্দ থেকে এর নামকরণ, তারও অর্থ হলুদ। এর লাতিন নাম ‘অরাম’-এরও অর্থ ‘ভোরের আলো’। ১৫০০ খ্রিস্টাব্দ থেকে গত ৫০০ বছরে এখনও পর্যন্ত খনি থেকে তোলা হয়েছে ১ লাখ টন সোনা। যার ৪০ শতাংশই উত্তোলন করা হয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকার উইটওয়াটারস্র্যান্ড থেকে। খনি থেকে সোনা তোলার কাজে বিশ্বে জড়িত রয়েছেন ৫ লাখ শ্রমিক। কিন্তু বছরে আড়াই হাজার টনের বেশি সোনা তোলা হয় না। সহজে উত্তোলন করার মতো সোনার মজুদ যতটা, তাতে আর বড় জোর ২০ বছর তা তোলা যাবে। তবে মজার ব্যাপার হচ্ছে মানব দেহেই রয়েছে রক্ত। আর এর পরিমাণ ০.২ মিলিগ্রাম। তবে সোনার বেশির ভাগটাই রয়েছে রক্তে। প্রচুর সোনা মিশে রয়েছে আমাদের রক্তে। গোটা শরীরেই রয়েছে। তবে বেশির ভাগটাই থাকে আমাদের রক্তে। আমাদের শরীরে যে ০.২ মিলিগ্রামের মতো সোনা থাকে তার বেশির ভাগটাই রয়েছে রক্তে।


আপনার মন্তব্য