শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ১৬ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৫ জানুয়ারি, ২০১৯ ২৩:০০

অ ন্য খ ব র

লাগবে না আর গাড়ি ভাড়া

লাগবে না আর গাড়ি ভাড়া

নগরে বসবাসরত নাগরিকদের খরচের একটা বড় অংশ যায় পরিবহনে। আর সেই খরচ থেকে নাগরিকদের উদ্ধারের ব্যবস্থা করেছে ইউরোপের ছোট কিন্তু ধনী দেশ লুক্সেমবার্গ। দেশটিতে আগামী মার্চ থেকে গণপরিবহনে আর ভাড়া লাগবে না। দেশটির জনসংখ্যা ৬ লাখ ২ হাজার। কিন্তু দেশটিতে যানজট এখন বড় সমস্যা। এই সমস্যা সমাধানের জন্য গত মাসে দেশটি ঘোষণা দেয়, ট্রেন, ট্রাম, বাসসহ সব ধরনের গণপরিবহনে বিনা মূল্যে চড়ার সুযোগ দেওয়ার পরিকল্পনা করছে সরকার। গতকাল সিএনএনের খবরে জানানো হয়, দেশটির গণপূর্ত ও যোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ড্যানি ফ্রাঙ্ক বলেন, এই উদ্যোগের ফলে যানজট সমস্যার সমাধান হবে। পরিবেশের জন্যও এটা ভালো হবে। ইউরোপীয় ইউনিয়নভুক্ত দেশগুলোর মধ্যে লুক্সেমবার্গের মাথাপিছু জিডিপি সবচেয়ে বেশি। তবে দেশটি আয়তনে মাত্র ২ হাজার ৫৮৬ বর্গকিলোমিটার হওয়ায় জায়গার সংকট তীব্র।

টেকসই উন্নয়ন ও অবকাঠামো বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের ২০১৭ সালের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ২০১৬ সালে লুক্সেমবার্গে প্রতি হাজারে ৬৬২ জনের গাড়ি ছিল। ওই বছর এ দেশের গাড়ির চালকরা গড়ে ৩৩ ঘণ্টা যানজটে আটকা ছিলেন। মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, গোটা দেশে গণপরিবহন সেবা আছে। প্রতি বছর এর পেছনে সরকারের খরচ ৫৬ কোটি ২০ লাখ ডলার। প্রতি বছর টিকিট বিক্রি করে পাওয়া যায় ৪ কোটি ৬০ লাখ ডলার। গণপূর্ত ও যোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ড্যানি ফ্রাঙ্ক বলেন, দেশের অর্থনীতি ভালো অবস্থায় আছে। বিনা মূল্যে যাতায়াতের সুযোগ দেওয়ার মাধ্যমে জনগণকে উন্নত অর্থনীতির সুফল দিতে চায় রাষ্ট্র। লুক্সেমবার্গ বিশ্ববিদ্যালয় এবং ভূমি ও যোগাযোগ ব্যবস্থা নিয়ে কাজ করা লুক্সেমবার্গ ইনস্টিটিউট অব সোসিও-ইকোনমিক রিসার্চের অধ্যাপক জেফরি কারুসো বলেন, চাকরির জন্য লুক্সেমবার্গ বেশ আকর্ষণীয়। অনেকে উচ্চ বেতনের চাকরি করেন। জীবনমানও তাই অনেক উন্নত। তবে বিনা মূল্যে ভ্রমণের সুযোগ কিছুটা বিড়ম্বনার জš§ দিতে পারে বলে আশঙ্কা তার। তিনি বলেন, আগে যারা হেঁটে বা সাইকেল চালিয়ে অল্প দূরত্বের পথ পাড়ি দিতেন, তারা এখন এর বদলে চট করে বাসে উঠে পড়বেন। তবে তিনি মনে করেন, সরকারের এই উদ্যোগের কারণে মানুষ এখন নিজের গাড়ি নিয়ে রাস্তায় কম বের হবেন। এতে যানজট কমবে।


আপনার মন্তব্য