শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১২ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১১ নভেম্বর, ২০১৯ ২৩:৫৩

দুর্নীতির অভিযোগ

দুদকে সময় চাইলেন বিডিনিউজ প্রধান সম্পাদক

নিজস্ব প্রতিবেদক

অবৈধ সম্পদ অর্জনের বিষয়ে বক্তব্য দিতে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) কাছে সময় চেয়েছেন অনলাইন সংবাদমাধ্যম বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমের প্রধান সম্পাদক তৌফিক ইমরোজ খালিদী। ৪ নভেম্বর দুদকের চিঠির পর ৭ নভেম্বর তিনি কমিশনের কাছে সময় চেয়ে আবেদন করেন। দুদকে আবেদন করার পরও গতকাল তিনি আবার কমিশনে যান। এ বিষয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথাও বলেন। এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে দুদকের মুখপাত্র প্রণব কুমার ভট্টাচার্য বলেন, ‘বৃহস্পতিবার বিকালে উনি সময়ের আবেদন করেছিলেন। ওই দিনই অনুসন্ধান কর্মকর্তা তার আবেদনটি গ্রহণ করে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পরের তারিখ জানানো হবে বলে জানিয়ে দেন। তার পরও কেন তিনি দুদকে এসেছেন তা বোধগম্য নয়।’

দুদকে গিয়ে গতকাল খালিদী সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন। এ সময় সাংবাদিকরা তার বিরুদ্ধে ওঠা অভিযোগের বিষয়ে প্রশ্ন করেন। জবাবে তিনি অভিযোগকে ভিত্তিহীন বলে দাবি করেন। খালিদী সাংবাদিকদের বলেন, ‘অভিযোগটা কী তা-ই আমি বুঝতে পারছি না।’ পদ্মা ব্যাংকের এমডির কাছে অর্থ দাবি করেছিলেন, এমন একটা গুঞ্জন আছে- এ প্রশ্নের জবাবে খালিদী বলেন, ‘গুঞ্জন নিয়ে তো আমি কোনো কথা বলব না।’

এলআর গ্লোবাল নামের যে প্রতিষ্ঠানটি বিডিনিউজে বিনিয়োগ করেছে, সে প্রতিষ্ঠান বিএসইসি কর্তৃক পাঁচ বছরের জন্য নিষিদ্ধ বলে শোনা যাচ্ছে। এরা বিনিয়োগ করতে পারে না- এমন প্রশ্নের জবাবে খালিদী বলেন, ‘এটা এসইসিকে জিজ্ঞাসা করতে হবে। আমি জানি না এসইসি কর্তৃক নিষিদ্ধ কিনা। আমার ধারণা এটা নিষিদ্ধ নয়।’

বিডিনিউজ এবং এর প্রধান সম্পাদক তৌফিক ইমরোজ খালিদীর নিজের অবৈধ সম্পদের বিষয়ে অনুসন্ধানে মাঠে নেমেছে দুদক। অনুসন্ধানের অংশ হিসেবে খালিদীকে তলব করে দুদক। ৪ নভেম্বর দুদকের এক চিঠিতে তাকে ১১ নভেম্বর কমিশনের কার্যালয়ে আসতে বলা হয়। এরই মধ্যে খালিদী ৭ নভেম্বর সময় চেয়ে কমিশনে আবেদন করেন।


আপনার মন্তব্য