শিরোনাম
প্রকাশ : ১৮ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ২১:৫৪

'চলচ্চিত্রের অশ্লীলতা বন্ধে প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে সরকার'

নিজস্ব প্রতিবেদক

'চলচ্চিত্রের অশ্লীলতা বন্ধে প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে সরকার'

তথ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ হাছান মাহমুদ সংসদে জানিয়েছেন, বর্তমান সরকার ক্ষমতা গ্রহণের পর থেকে চলচ্চিত্রের অশ্লীলতা বন্ধ করতে আন্তরিক ও নিরলসভাবে প্রচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। সরকারের এই প্রচেষ্টার ফলেই বাংলাদেশের চলচ্চিত্রে সুস্থ ধারা চলমান রয়েছে। বাংলাদেশের চলচ্চিত্র তৈরির মানোনন্নয়নের মাধ্যমে বাঙালি সংস্কৃতির সুস্থ ধারার চলচ্চিত্র নির্মাণের জন্য চলচ্চিত্র নীতিমালা করা হয়েছে, বিধায় বাংলা চলচ্চিত্রের মানোন্নয়নসহ বাঙালি সংস্কৃতির সুস্থ ধারার চলচ্চিত্র নির্মিত হবে।

স্পিকার ড. শিরিন শারমীন চৌধুরীর সভাপতিত্বে একাদশ সংসদের ষষ্ঠ অধিবেশনে মঙ্গলবার টেবিলে উত্থাপিত প্রশ্নোত্তর পর্বে এম. আবদুল লতিফ (চট্টগ্রাম-১১) লিখিত প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন। 

তথ্যমন্ত্রী বলেন, চলচ্চিত্র মুক্তির পূর্বে বাংলাদেশ চলচ্চিত্র সেন্সর বোর্ডে এর ছাড়পত্র গ্রহণ বাধ্যতামূলক। সেন্সর বোর্ডের ছাড়পত্রের জন্য চলচ্চিত্র সংশ্লিষ্ট বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গসহ সরকারি উচ্চ পদস্থ কর্মকর্তা সমন্বয়ে একটি শক্তিশালী বোর্ড রয়েছে। বোর্ড অশ্লীল সংলাপ, গালমন্দ, হত্যা ধর্ষণ, খুনের খোলামেলা দৃশ্য চিত্রায়ন ও প্রদর্শন এবং সমাজে নৈতিক অবক্ষয় সৃষ্টি করিতে পারে। এমন দৃশ্য কর্তন/সংশোধনসহ সেন্সর নীতিমালা অনুসরণপূর্বক ছাড়পত্র দিয়ে থাকে। এছাড়া চলচ্চিত্রে অশ্লীলতা দূরীকরণ ও ভিডিও পাইরেসি প্রতিরোধে গঠিত টাস্কফোর্সের মাধ্যমে সারাদেশে র‌্যাব ব্যাটালিয়ানের সহায়তায় সাদা পোষাকে সার্বক্ষণিক নজরদারী করা হচ্ছে। ফলে কোনো সিনেমা হলে পূর্বের ন্যায় কাটপিস প্রদর্শনের বিষয়ে সুনির্দিষ্ট কোনো অভিযোগ পাওয়া যাচ্ছে না। 

বিডি প্রতিদিন/এনায়েত করিম


আপনার মন্তব্য