রবিবার, ৮ আগস্ট, ২০২১ ০০:০০ টা

নওগাঁয় আম চাষে অনন্য দৃষ্টান্ত

বাবুল আখতার রানা, নওগাঁ

নওগাঁয় আম চাষে অনন্য দৃষ্টান্ত

৫০০ বিঘা জমিতে এককভাবে আম উৎপাদন করে অনন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন নওগাঁর সাখাওয়াত হাবিব নামে এক তরুণ। তার জমিতে বিষমুক্ত, সুস্বাদু ও সুমিষ্ট  আম্রপালি ও বারি-৪ জাতের আম রয়েছে। এ পর্যন্ত প্রায় দেড় কোটি টাকার আম বিক্রি করেছেন, আরও ২ কোটি টাকার আম বিক্রির আশা তার। কৃষি বিভাগ বলছে, সাখাওয়াত হাবিব জেলার মডেল ও সফল একজন আমচাষি। তাকে সার্বিকভাবে সহযোগিতা করা হয়েছে। আর অনেক আমচাষি তার আম বিপ্লব দেখে অনুপ্রাণিত হয়ে আমবাগান করেছেন। বরেন্দ্র অঞ্চল হিসেবে খ্যাত সাপাহার, পোরশা, নিয়ামতপুর ও পত্নীতলা উপজেলা। এ অঞ্চলের অনেক মানুষই লাভজনক ফসল আমচাষের দিকে বেশি ঝুঁকছেন। আর এ জেলার সবচেয়ে সুমিষ্ট আম হচ্ছে আম্রপালি। শুধু আম্রপালিই নয়; এর পাশাপশি বারি-৪, ফজলি, ল্যাংড়া ও আশ্বিনাসহ প্রায় সব জাতের আম উৎপাদিত হয়। আমচাষি সাখাওয়াত জানান, ২০০৯ সালে প্রথমে মাত্র চার বিঘা জমি লিজ নিয়ে শুরু করেন আমবাগান। এরপর ২০ বিঘা, তারপর ৪০ বিঘা, এরপর ১০০ বিঘা, গত বছর ৩০০ বিঘা আর চলতি বছর ৫০০ বিঘা জমিতে আম্রপালি ও বারি-৪ জাতের আমবাগান করেছেন। সাপাহার ও পত্নীতলা উপজেলায় রয়েছে তার এসব আমবাগান। তার বাগানে কর্মরত শ্রমিক শামীম জানান, এখানকার উৎপাদিত আমগুলো বিষমুক্ত। দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে পাইকাররা এসে আম কিনে নিয়ে যাচ্ছেন। তার আমবাগানে কর্মসংস্থান হয়েছে শতাধিক বেকার মানুষের। অনেকেই তার আম বিপ্লব দেখে অনুপ্রাণিত হয়ে আমবাগান করেছেন। সাপাহার উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ কর্মকর্তা মো. মনিরুজ্জামান জানান, এককভাবে নওগাঁ জেলার মধ্যে সফল কৃষক হিসেবে বেশ সুনাম পেয়েছেন সাখাওয়াত। তিনি তার নিজস্ব ও লিজ নেওয়া ৫০০ বিঘা জমিতে আম্রপালি ও বারি-৪ সহ বিভিন্ন জাতের আমবাগান করেছেন। কৃষি বিভাগ থেকে সার্বিকভাবে তাকে সহযোগিতা করা হয়েছে। তার মতো এ রকম সফল উদ্যক্তাসহ সব কৃষককে সহযোগিতার আশ্বাস দেন তিনি।

এই বিভাগের আরও খবর