শিরোনাম
প্রকাশ : সোমবার, ৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ টা
আপলোড : ২ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ২৩:৫০

জামালের মুখে আলোর ঝিলিক

ক্রীড়া প্রতিবেদক

জামালের মুখে আলোর ঝিলিক

ঘরোয়া আন্তর্জাতিক ফুটবলে দর্শক নেই বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে। ২০০৯ সালে কোটি টাকার সুপার কাপ ও ২০১১ সালে আর্জেন্টিনা-নাইজেরিয়া ম্যাচেই শেষবারের মতো দর্শক উপচে পড়েছিল বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামের গ্যালারিতে। এরপর প্রায় ফাঁকা। মোহামেডান-আবাহনী ম্যাচেও দর্শক যেন হাতে গোনা যায়। যাক সেই দৃশ্যের পরিবর্তনের আভাস পাওয়া যাচ্ছে। সাফ চ্যাম্পিয়ন্সশিপ ঘিরে ফুটবল উন্মাদনায় মাতছে ক্রীড়াপ্রেমীরা। আশা করা যাচ্ছে এবার বাংলাদেশের প্রতিটি ম্যাচে চোখে পড়ার মতো দর্শকের উপস্থিতি ঘটবে।

যে ট্রফিকে নিয়ে সাত দল শ্রেষ্ঠত্বের লড়াইয়ে মুখোমুখি হবে। তার উন্মোচন হলো গতকাল। বাফুফে ও সাফ সভাপতি কাজী সালাউদ্দিন তখন বললেন, এটাই চ্যাম্পিয়নের ট্রফি। তখন মঞ্চে উপস্থিত অধিনায়ক জামাল ভূঁইয়ার মুখে আলোর ঝিলিক। মেসি-রোনালদোরা লড়েন বিশ্বকাপের ট্রফি জিততে। দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলোর কাছে এটাইতো বিশ্বকাপ। এই ট্রফি জেতাটাও সার্ক অঞ্চলের দেশগুলোর কাছে বড় প্রাপ্তি। ২০০৩ সালে ঢাকায় শিরোপার ট্রফি নিয়ে উল্লাসে মেতেছিল বাংলাদেশ। ১৫ বছর পর ঘরের মাঠেই জামাল ভূঁইয়া চ্যাম্পিয়নের ট্রফি নিয়ে দর্শকদের সামনে তুলে ধরবেন কি?

ট্রফি উন্মোচনের সময় অনেকেই বলছিলেন, এবার আর যাবে কোথায় স্বপ্নের ট্রফি বাংলাদেশই জিতবে। আগামীকাল পর্দা উঠছে বহুপ্রতীক্ষিত ১২তম সাফ চ্যাম্পিয়ন্সশিপের। দলগুলো এসেও গেছে। সবকিছু প্রস্তুত, শুধু পর্দা ওঠার অপেক্ষায়। ১৫ সেপ্টেম্বর ফাইনালে কার হাতে চ্যাম্পিয়নের ট্রফি উঠবে সেটাই এখন অপেক্ষা।


আপনার মন্তব্য