১১ ডিসেম্বর, ২০২২ ১৯:৩৩

জবিতে জমে উঠেছে শিক্ষক সমিতির নির্বাচন

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি

জবিতে জমে উঠেছে শিক্ষক সমিতির নির্বাচন

নানা নাটকীয়তা শেষে জমে উঠেছে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির (জবিশিস) ২০২২-২৩ সালের কার্যকারী নির্বাচন। দীর্ঘ আট বছর পরে সাদা দলের সক্রিয় অংশগ্রহণে আগামী ২১ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকদের এ প্রতিদ্বন্দ্বিতামূলক এ নির্বাচন। 

আজ (রবিবার) ১১ ডিসেম্বর আনুষ্ঠানিকভাবে মনোনয়নপত্র সংগ্রহের মাধ্যমে শুরু হয়েছে এবারের নির্বাচন। এর আগে গত ৭ ডিসেম্বর প্রধান নির্বাচন কমিশনার ড. মো. আবদুল আলীম স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হয়। 

নির্বাচন কমিশনের বরাতে জানা যায়, এবারের নির্বাচনে ১৫টি পদের বিপরীতে নির্বাচন করবেন একাধিক প্যানেলের শিক্ষকরা। আগামীকাল ১২ ডিসেম্বর মনোনয়ন জমা দেওয়ার শেষ তারিখ এবং ১৮ ডিসেম্বর মনোনয়ন প্রত্যাহার এবং ওইদিনই প্রার্থীদের তালিকা ঘোষণা করা হবে বলে জানিয়েছেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার। 

যদিও প্রতিবারে নির্বাচনে নীল দলের দুটি বিভক্ত প্যানেল অংশ নিলেও এবারে নির্বাচনে অংশে নিচ্ছে তিনটা প্যানেল। প্রথমবারের মতো আওয়ামী লীগ পন্থী শিক্ষকদের সংগঠন নীল দলের অনুসারীরা তিনটি আলাদা প্যানেল নির্বাচনে অংশগ্রহণ করবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন। অপরদিকে নীল দলের প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে দীর্ঘ আট বছর পরে চমক হিসেবে নির্বাচনে অংশ নিচ্ছে বিএনপির সমর্থিত সাদা দলের সদস্যরা। 

শিক্ষক সমিতির নির্বাচনে নীল দলের তিনটি প্যানেলের মধ্যে বর্তমান শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. আবুল হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. লুৎফর রহমান প্যানেন এবং অধ্যাপক শামীমা বেগম - অধ্যাপক মো.আশরাফ এবং অধ্যাপক ড. হোসনে আরা বেগম ও সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড. কাজী মো. নাসির উদ্দীন প্যানেল। অপরদিকে তাদের প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে নির্বাচনে অংশ নিচ্ছে বিএনপির সমর্থিত সাদা দলের বর্তমান সভাপতি অধ্যাপক ড. মো. মোশাররফ ও সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক ড মো. রইছ উদ্দিনের প্যানেলের সদস্যরা।


বিডি প্রতিদিন/হিমেল

এই বিভাগের আরও খবর

সর্বশেষ খবর