২৯ আগস্ট, ২০২১ ২১:৫০

ইসিতে সাংবাদিক প্রবেশে নতুন নির্দেশনা

ক্যামেরা ছাড়া সাংবাদিক হয় নাকি, ইসিতে প্রবেশের সময় প্রশ্ন

নিজস্ব প্রতিবেদক

ক্যামেরা ছাড়া সাংবাদিক হয় নাকি, ইসিতে প্রবেশের সময় প্রশ্ন

ফাইল ছবি

ইসিতে সাংবাদিক প্রবেশের নতুন বিধি নিষেধ আরোপ করেছে নির্বাচন কমিশন। কার্ড ঝুলিয়ে চলতে হবে। এছাড়া নির্বাচন ভবনে প্রবেশের আগেই গেটে নাম, ঠিকানা, সময়, কার কাছে যাবেন, কি কাজ, কতক্ষণ থাকবেন ইত্যাদি লিখে প্রবেশ করতে হবে। এই নতুন নির্দেশনা জারির কারণে আগারগাঁওয়ের নির্বাচন ভবনে প্রবেশের সময় নির্বাচন কমিশন বিটের বেশ কয়েকজন রিপোর্টার হয়রানির শিকার হয়েছেন। ইসির প্রবেশ গেটে আগে কখনো নাম এন্টির নির্দেশনা না থাকলেও ২৯ আগস্ট রবিবার হঠাৎ এই নির্দেশনা জারি করা হয় গেটে।

আবার এন্টি করতে গিয়ে পুলিশের প্রশ্নের মুখোমুখি হতে হয় তাদের। গেটে নাম এন্টি করতে গিয়ে পুলিশের প্রশ্ন ‘আপনি সাংবাদিক? আপনার ক্যামেরা ও রেকর্ডার কোথায়?’

ঘটনা দুপুর সাড়ে ১২টায়। ইসির মূল গেট দিয়ে দ্রুত নির্বাচন ভবনে প্রবেশের সময় পুলিশ হঠাৎ আটকে দেন এই প্রতিবেদককে। হঠাৎ করেই কার্ড দেখতে চান তারা। কিন্তু আগে কখনো এমনটি হয়। তখন এই প্রতিবেদকের প্রশ্ন ছিল নতুন কোনো নির্দেশনা জারি করেছে ইসি? তারা বলেন, ‘কার্ড দেখতে চেয়েছি কার্ড দেখান’। তখন এই প্রতিবেদক নির্বাচন কমিশন বিটে কাজ করার জন্য ইসির সরবরাহ কার্ড দেখান। পরে পত্রিকার পরিচয়পত্র দেখান। কিন্তু তাদের প্রশ্ন- ‘আপনি সাংবাদিক আপনার ক্যামেরা কোথায়? রেকর্ডার কোথায়? কোথায় যাবেন? কেন যাবেন? কার কাছে যাবেন?’

পুলিশ সদস্যরা বলেন, ‘আপনার নাম ঠিকানাসহ বিস্তারিত খাতায় লিখে যেতে হবে। তা না হলে আপনি যেতে পারবেন না।’ এরপর নাম এন্ট্রি করতে বাধ্য করা হয় এই প্রতিবেদকসহ একাধিক গণমাধ্যম কর্মীকে।
 
ইসিতে প্রবেশের সময় আগে এমন নিয়ম কখনো ছিল না উল্লেখ করলে পুলিশের দায়িত্বরত সদস্য মাকসুদ-খোরশেদ এই প্রতিবেদকে বলেন, ‘পুলিশের কাজে বাঁধা দেবেন না। যা বলছি তাই করেন।’ পরে এই প্রতিবেদক খাতায় নাম এন্ট্রি করে নির্বাচন ভবনে প্রবেশ করেন। এই সময়ে আরও একাধিক সাংবাদিক নাম এন্ট্রি করে প্রবেশ করেন ইসি ভবনে। 

এ বিষয়ে জানতে চাইলে ইসির গেটের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কামাল বলেন, ইসির নির্দেশনা রয়েছে ইসির ভবনে প্রবেশ করতে হলে কার্ড ঝুলিয়ে প্রবেশ করতে হবে। আপনি কার্ড গলায় ঝুলাননি। তবে খাতায় এন্ট্রি করার নির্দেশনার বিষয়ে তিনি কিছু বলতে রাজি হননি।

এদিকে গেটে নাম এন্টি করা ও সাংবাদিক হয়রানির বিষয়ে জানতে চাইলে ইসির যুগ্ম সচিব ও পরিচালক (জনসংযোগ) এস এম আসাদুজ্জামান বলেন, সাংবাদিক হয়রানির বিষয়ে আমার কিছু করার নেই। আমি সংশ্লিষ্টদের ডেকে জানব- কি ঘটেছিলো। 


বিডি প্রতিদিন/হিমেল

এই বিভাগের আরও খবর