Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ১৭ এপ্রিল, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৬ এপ্রিল, ২০১৯ ২৩:৩৩

কলেজছাত্রীকে তিন মাস আটকে রেখে ধর্ষণ

দেখানো হয় নায়িকা বানানোর প্রলোভন

টাঙ্গাইল প্রতিনিধি

কলেজছাত্রীকে তিন মাস আটকে রেখে ধর্ষণ

টাঙ্গাইলের গোপালপুরে সিনেমার নায়িকা বানানোর কথা বলে অপহৃত কলেজছাত্রীকে প্রায় তিন মাস আটকে রেখে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় এসএম আকাশ ওরফে ফারুক শিকদার (২৮) নামে একজনকে আটক করেছে পুলিশ। ফারুক ফরিদপুরের বোয়ালমারী থানার কাইয়ুম শিকদারের ছেলে। গোপালপুরের ভোলারপাড়ার লোকজন গত রবিবার অপহৃত মেয়েটিকে উদ্ধার ও অভিযুক্তকে গণধোলাই দিয়ে পুলিশে দেয়। সোমবার মেয়ের বাবার করা নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলায় পুলিশ আসামিকে টাঙ্গাইল আদালতে পাঠায়। গোপালপুর থানার ওসি জানান, ধর্ষণের শিকার ছাত্রীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য টাঙ্গাইল শেখ হাসিনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। মামলা সূত্রে জানা যায়, গত ২১ জানুয়ারি সকালে গোপালপুর সরকারি কলেজে অনুষ্ঠান থেকে বাড়ি ফেরার পথে ওই ছাত্রীকে রাস্তা থেকে মাইক্রোবাসে তুলে ঢাকার দক্ষিণ কেরানীগঞ্জে নিয়ে যায় ফারুক শিকদার। সেখানে একটি বাসায় আটকে রেখে সিনেমার নায়িকা বানানোর কথা বলে প্রায় তিন মাস তাকে ধর্ষণ করে। ভুক্তভোগীর বোন কৌশলে মোবাইলে যোগাযোগ করে গত রবিবার দুপুরে তাদের গোপালপুর নিয়ে আসে।


আপনার মন্তব্য