শিরোনাম
প্রকাশ : রবিবার, ১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ১৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ২৩:২৬

নদীতে অবৈধ বালু উত্তোলন বন্ধ করলেন ইউএনও

নিজস্ব প্রতিবেদক, খুলনা

খুলনার কয়রার কপোতাক্ষ ও শাকবাড়িয়া নদীতে মাসের পর মাস বালু উত্তোলন করায় হুমকির মুখে পড়েছে নদীপাড়ের বেড়িবাঁধ, ফসলি জমি ও ঘরবাড়ি। নদীতে ড্রেজার দিয়ে বালু উত্তোলন করায় নদী ভাঙনের প্রবণতা বেড়েই চলেছে।

এদিকে গতকাল বিকালে স্থানীয়দের অভিযোগের প্রেক্ষিতে কপোতাক্ষ নদের ভাঙন কবলিত ২নং কয়রা ও হরিণখোলা এলাকায় অবৈধ বালু উত্তোলন বন্ধ করে দেন উপজেলা সহকারী কমিশনার ও ভারপ্রাপ্ত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মোহাম্মদ নূর-ই আলম সিদ্দিকী। এ সময় নদী তীরের ভাঙন কবলিত এলাকা থেকে ড্রেজারগুলো সরিয়ে দেওয়া হয়। জানা যায়, প্রভাবশালীদের ছত্রছায়ায় কয়রায় কপোতাক্ষ নদের গাববুনিয়া, হরিণখোলা ও মদিনাবাদ লঞ্চ ঘাট, শাকবাড়িয়া নদীর কাটকাটা, ২ নং কয়রা, চাঁদআলীসহ কয়েকটি স্থানে অবৈধভাবে ড্রেজার দিয়ে বালু তোলা হচ্ছে। ভাঙনকবলিত এলাকায় এভাবে বালু উত্তোলন করায় নদী ভাঙনের প্রবণতা আরও বেড়েই চলেছে। উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোহাম্মদ নূর-ই আলম সিদ্দিকী বলেন, কয়রায় কোনো বালু মহাল নেই। তারপরও দীর্ঘদিন ধরে বালু উত্তোলন চলছে।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর