শিরোনাম
প্রকাশ : ১৮ জুন, ২০১৯ ১৮:০৭

বড়াইগ্রামে ছাত্রলীগ নেতা খুন, ১৬ দিনেও কেউ গ্রেফতার হয়নি

নাটোর প্রতিনিধি:

বড়াইগ্রামে ছাত্রলীগ নেতা খুন, ১৬ দিনেও কেউ গ্রেফতার হয়নি

নাটোরের বড়াইগ্রামে হাতুড়ি পেটায় ছাত্রলীগ নেতা সোহেল রানা (২৮) খুন হওয়ার ১৬ দিন পরও পুলিশ হত্যা মামলার ৭ আসামির কাউকেই গ্রেফতার করতে পারেনি। এদিকে আসামিদের দ্রুত গ্রেফতার ও শাস্তির দাবিতে বুধবার (১৯ জুন) সকাল ১০টায় পৌরসভা কার্যালয়ের সামনে বনপাড়া শহর ছাত্রলীগ এক মানববন্ধন কর্মসূচির আয়োজন করেছে।

গত ২ জুন উপজেলার বনপাড়া পৌরসভার মহিষভাঙ্গা দক্ষিণপাড়া এলাকার ঈদগাহ মাঠ সাজানোকে কেন্দ্র করে সৃষ্ট বিরোধের জের ধরে একই এলাকার কয়েক যুবক হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে সোহেল রানাকে হত্যা করে। সোহেল ওই গ্রামের খলিল প্রামাণিকের একমাত্র ছেলে ও জেলা আওয়ামী ছাত্রলীগের সদস্য। এ ঘটনায় নিহত সোহেলের পিতা খলিল প্রামাণিক বাদী হয়ে ৭ জনের বিরুদ্ধে বড়াইগ্রাম থানায় হত্যা মামলা (নং ৩ তারিখ ৩/৬/২০১৯) দায়ের করেছে। 

মামলার আসামীরা হলেন, একই গ্রামের মৃত আহম্মেদ আলীর ছেলে রাজিব (২৩), মোহাম্মদ আলীর ছেলে সাগর (২৩), রফিক মৃধার ছেলে নয়ন (২৬), আব্দুস ছামাদ মোল্লার ছেলে সজীব (৩০), মৃত ফয়েজ মোল্লার ছেলে মোহাম্মদ আলী (৬০), মৃত ফকির মৃধার ছেলে রফিক মৃধা (৬০) ও মৃত জয়নাল আবেদীনের ছেলে সাইফুল ইসলাম (৪০)। 

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা উপ-পরিদর্শক (এসআই) শামসুল ইসলাম জানান, ঘটনার পর থেকে শুধু আসামিরাই নয় পরিবারের সকলেই গা-ঢাকা দিয়েছে। আসামিদের আটক করতে পুলিশ সব রকম চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। 

এদিকে সোহেল হত্যার আসামিদের দ্রুত গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনতে জোর দাবি জানিয়েছে স্থানীয় ছাত্রলীগ। বনপাড়া শহর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আতিকুর রহমান পিয়াস জানান, আসামিদের গ্রেফতার ও বিচারের দাবিতে বুধবার পৌরসভা কার্যালয়ের সামনে এক শান্তিপূর্ণ মানববন্ধন কর্মসূচী পালন করা হবে।  

বনপাড়া পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র কেএম জাকির হোসেন তদন্ত সাপেক্ষে মূলদায়ী ব্যক্তিদের চিহ্নিত করে দ্রুত গ্রেফতার ও আইনের আওতায় আনার দাবি জানিয়েছেন। 

বিডি প্রতিদিন/এ মজুমদার


আপনার মন্তব্য