Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper
শিরোনাম
প্রকাশ : ১৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ২২:৫৪

রোহিঙ্গার পাসপোর্টে নোয়াখালীর ঠিকানা; দুই এএসআই’র ত্রুটি পেয়েছে কমিটি

নোয়াখালী প্রতিনিধি:

রোহিঙ্গার পাসপোর্টে নোয়াখালীর ঠিকানা; দুই এএসআই’র ত্রুটি পেয়েছে কমিটি
প্রতীকী ছবি

চট্টগ্রামে গ্রেফতারকৃত তিন রোহিঙ্গার পাসপোর্টে নোয়াখালীর ঠিকানা ব্যবহারের ঘটনায় জেলা পুলিশের বিশেষ শাখার (ডিএসবি) দুই সহকারি উপ-পরিদর্শকের (এএসআই) বিরুদ্ধে অপরাধ খুঁজে পেয়েছে তদন্ত কমিটি। আজ মঙ্গলবার নোয়াখালী জেলা পুলিশ সুপার মো. আলমগীর হোসেনের কাছে তদন্ত কমিটি প্রতিবেদন জমা দেন। 

অভিযুক্তরা হলেন, আবুল কালাম ও নুরুল হুদা। 

জানা যায়, রোহিঙ্গাদের পাসপোর্টে নোয়াখালীর ঠিকানার ঘটনায় ডিএসবির দুই এএসআই আবুল কালাম ও নুরুল হুদাকে সম্প্রতি পুলিশ লাইনে সংযুক্ত করা হয়। এ ঘটনায় তাদের বিরুদ্ধে গত বৃহস্পতিবার তদন্ত শুরু করে পুলিশ প্রশাসন। বেগমগঞ্জ সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শাহজাহান শেখকে এ বিষয়ে তদন্ত করে পাঁচ দিনের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন দেয়ার নির্দেশ দেয়া হয়। সোমবার তদন্ত প্রতিবেদন দেয়ার কথা থাকলেও আজ মঙ্গলবার তা দেয়া হয়। ওই প্রতিবেদনে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে সুনির্দিষ্ট কিছু অভিযোগ পাওয়া যায়। তবে অভিযোগগুলো কি ছিল তা জানা যায়নি। 

এ বিষয়ে পুলিশ সুপার জানান, তাদের দুইজনকে আগেই পুলিশ লাইনে সংযুক্ত করা হয়েছে। তদন্ত প্রতিবেদনের আলোকে তাদেরকে আগামী সাত দিনের মধ্যে জবাব দেওয়ার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। জবাব পাওয়ার পর প্রাতিষ্ঠানিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানান তিনি। 

উল্লেখ, সম্প্রতি চট্টগ্রামে গ্রেফতারকৃত তিন রোহিঙ্গা যুবকের বাড়ি মিয়ানমারে হলেও নোয়াখালীর সেনবাগের কাদরা ইউনিয়নের জন্ম ও নাগরিক সনদ দেখিয়ে বাংলাদেশী পাসপোর্ট করেছেন তারা। পুলিশের বিশেষ শাখা (ডিএসবি) কর্তৃক তদন্ত সাপেক্ষে রিপোর্টের মাধ্যমে এ পাসপোর্ট ইস্যু করে জেলার আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিস। কিন্তু কিভাবে পুলিশ এ রিপোর্ট দিল তা নিয়ে জেলায় তোলপাড় শুরু হয়। এক পর্যায়ে পুলিশ প্রশাসন থেকে তাদের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করে। 


বিডি প্রতিদিন/হিমেল


আপনার মন্তব্য