শিরোনাম
প্রকাশ : ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ১১:২৪

অসহায় মানুষের জন্য মিজানের ফ্রি খাবার হোটেল!

বকুল মাহবুব, বেনাপোল:

অসহায় মানুষের জন্য মিজানের ফ্রি খাবার হোটেল!

'ক্ষুধা লাগলে খেয়ে যান' এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে যশোরের নাভারণে পথশিশু, মানসিক ভারসাম্যহীন অসহায় দুঃস্থদের জন্য একবেলা ফ্রি খাবারের ব্যবস্থা করেছে  শার্শার মিজান।

মানবসেবা হেল্প ফাউন্ডেশনের অর্থানুকূল্যে গত শুক্রবার দুপুর ২ টার দিকে শার্শা উপজেলার বুরুজবাগান উচ্চ বালিকা বিদ্যালয়ের মাঠে আনুষ্ঠানিকভাবে খাবার হোটেলের কর্মযজ্ঞ শুরু হয়। শার্শার বুরুজবাগান বালিকা বিদ্যালয়ের গেটের পাশে বাঁশের বেড়া আর ছন দিয়ে তৈরি হয়েছে বিনামূল্যের খাবারের কথিত হোটেল বা পান্থশালা।  প্রতিদিন ৫০ জনেরর খাবারের ব্যবস্থা রেখে চালু করা হয়েছে পান্থশালাটি।
ইতিমধ্যে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে মিজানের এই খাবার হোটেলটি। শুধু শার্শা নয়, পাশ্বর্বতী ঝিকরগাছা এবং কলারোয়া থেকে ছুটে আসছে ক্ষুধার্থ মানুষ।

উদ্ভাবক মিজানুর রহমান বলেন, করোনাকালে অনাহারে থাকা পথশিশু ও রাস্তার ভারসাম্যহীন পাগলদের জন্য খাবার খাওয়াতে তার এই উদ্যোগ। প্রথমদিকে মানুষ বাঁকা চোখে তাকালেও এখন অনেকেই সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিচ্ছে। মালয়েশিয়ায় কর্মরত জনৈক এক প্রবাসী সুবিধাবঞ্চিতদের খাবারের জন্য ৫০ হাজার টাকা মূল্যের একটি গরুও দান করেছে এই পান্থশালায়। পথশিশু ফকির মিসকিনদের পাশাপাশি এখন অনেকেই পেটভরে খেয়ে যাচ্ছে এই হোটেল থেকে।  হোটেলের পাশে গার্লস স্কুলের এক কর্মচারি নার্সারি ব্যবসায়ী  মিজানকে আর্থিক এবং রান্নাবান্নার কাজে সহযোগীতা করছেন। 


বিডি প্রতিদিন/হিমেল


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর