শিরোনাম
প্রকাশ : ১ ডিসেম্বর, ২০২০ ২১:৫৪
প্রিন্ট করুন printer

রায়পুরে ৫ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে অর্থদণ্ড

রায়পুর (লক্ষ্মীপুর) প্রতিনিধি

রায়পুরে ৫ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে অর্থদণ্ড
হাসপাতালে ভ্রাম্যমাণ আদালতের অভিযান।

লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে ৫ প্রাইভেট হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে ৪৫ হাজার টাকা অর্থদণ্ড দিয়েছে ভ্রাম্যমাণ আদালত। নানা অনিয়ম ও অব্যস্থাপনা এবং কাগজপত্র হালনাগাদ না করার অপরাধে এ জরিমানা করা হয়।

মঙ্গলবার বিকেলে রায়পুর পৌর শহরের হাসপাতালগুলোতে অভিযান চালান সিভিল সার্জন ও রায়পুরের সহকারী কশিনার (ভূমি) আক্তার জাহান সাথী।

অর্থদণ্ডপ্রাপ্ত হাসপাতালগুলো হলো-নিরাময় হাসপাতালকে ৫ হাজার, মর্ডান হাসপাতালকে ১০ হাজার, মা ও শিশু হাসপাতালকে ২০ হাজার, মেহেরুন্নেছা হাসপাতালকে ১০ হাজার, জনসেবা হাসপাতালকে ৫ হাজার ও হেলথ কেয়ার সেন্টারকে ৫ হাজার টাকা অর্থদণ্ড করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। 

সিভিল সার্জন আব্দুল গাফফার বলেন, কোনো প্রতিষ্ঠান বন্ধ করা বা সিলগালা করা আমাদের উদ্দেশ্য নয়। আমরা চাচ্ছি আইনের মধ্য থেকে সেবা নিশ্চিত করুক। সেজন্য হাসপাতালগুলোকে কাগজপত্রসহ অন্যান্য সমস্যাগুলো দ্রুত সমাধান করতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু বারবার বলার পরেও তাদের কোনো উন্নতি হয়নি। তাই পুনরায় সতর্ক করে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে জরিমানা করা হয়েছে।

রায়পুর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) আক্তার জাহান সাথী বলেন, স্বাস্থ্যসেবায় অবহেলা ও অনিয়মের কারণে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন ও বিভিন্ন অনিয়মের কারণে ৫টি প্রাইভেট হাসপাতালকে ৪৫ হাজার টাকা অর্থদণ্ড করা হয়েছে। জনস্বার্থে এই অভিযান চলমান থাকবে।  

বিডি প্রতিদিন/এমআই


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৫ জানুয়ারি, ২০২১ ১৫:০৩
প্রিন্ট করুন printer

কুষ্টিয়ায় দুই মরদেহ উদ্ধার

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি:

কুষ্টিয়ায় দুই মরদেহ উদ্ধার

কুষ্টিয়ায় আলাদা ঘটনায় আমিরুল ইসলাম ও ক্যারাই বিশ্বাস নামে দু’জনের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার সকালে কুষ্টিয়া সদর ও কুমারখালী উপজেলা থেকে তাদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ ও স্থানীয় সুত্র জানায়, সকালে কুমারখালী উপজেলার ভড়ুয়াপাড়া মাঠের সষ্যক্ষেতে আমিরুল ইসলাম সবুর (৪৩) নামে এক কৃষকের মরদেহ পড়ে থাকতে দেখে পুলিশে খবর দেয়। খবর পেয়ে কুমারখালী থানা পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে নিহতের মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে প্রেরণ করে। রোববার রাতে আমিরুল বাড়ি থেকে বের হয়ে আর বাড়ি ফিরেনি। শরীরে আঘাতের চিহ্ন না থাকলেও মৃত্যুর কারন অনুসন্ধান করছে পুলিশ।

এদিকে কুষ্টিয়া সদর উপজেলার সুগার মিল এলাকার মরাগড়াই খাল থেকে ক্যারাই বিশ্বাস নামে মানসিক ভারসাম্যহীন এক ব্যক্তির মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ক্যারাই বিশ্বাসের বাড়ি কুষ্টিয়া সুগার মিল এলাকার কাটাজুলাপাড়ায়। 
পুলিশ মরদেহ দু’টি উদ্ধার কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

বিডি প্রতিদিন/ মজুমদার 


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৫ জানুয়ারি, ২০২১ ১৪:৫৪
আপডেট : ২৫ জানুয়ারি, ২০২১ ১৫:০০
প্রিন্ট করুন printer

দেশের সকল দূরপাল্লার রুটে নৌযান ধর্মঘট শুরু

নিজস্ব প্রতিবেদক, বরিশাল

দেশের সকল দূরপাল্লার রুটে নৌযান ধর্মঘট শুরু
ফাইল ছবি

ঢাকার মেরিন আদালতে যাত্রীবাহী নৌযানের দুইজন মাস্টারের (চালক) জামিন বাতিলের প্রতিবাদে আজ সোমবার দুপুর ২টা থেকে ঢাকা-বরিশালসহ দেশের সকল দূরপাল্লা রুটে নৌযান ধর্মঘট শুরু করেছে নৌযান শ্রমিকরা।

বরিশাল নৌযান শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি শেখ আবুল হাসেম এ তথ্য জানিয়েছেন। 

 

বিস্তারিত আসছে...


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৫ জানুয়ারি, ২০২১ ১৪:৫২
প্রিন্ট করুন printer

গণশৌচাগারে বাস করা সেই শাহাদাত-নার্গিস দম্পতি পাচ্ছেন ঘর

বোয়ালমারী (ফরিদপুর) প্রতিনিধি:

গণশৌচাগারে বাস করা সেই শাহাদাত-নার্গিস দম্পতি পাচ্ছেন ঘর

ফরিদপুরের বোয়ালমারীর গণশৌচাগারে বাস করা শাহাদাত-নার্গিস দম্পতি অবশেষে ঘর পাচ্ছেন। গণমাধ্যমে এ নিয়ে সংবাদ প্রকাশ হলে বিষয়টি কর্তৃপক্ষের নজরে আসে। এরপর সোমবার (২৫ জানুয়ারি) সকাল ১১ টায় বোয়ালমারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ঝোটন চন্দ ওই দম্পতির সাথে দেখা করে তাদের মুজিববর্ষে প্রধানমন্ত্রীর দেয়া উপহার 'ঘর' দেয়ার প্রতিশ্রুতি দেন। 

এছাড়া কথোপকথনের সময় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ঝোটন চন্দ জানতে পারেন অন্যের নিকট থেকে শাহাদাতের ২০ হাজার টাকার ঋণ নেওয়া আছে। তিনি ঋণের ওই টাকাও পরিশোধের ব্যবস্থা করবেন বলে জানান।

ঝোটন চন্দ বলেন, আমরা সম্প্রতি তাদের (শাহাদাত দম্পতি) সম্পর্কে জেনেছি। তাদের ঘরের ব্যবস্থা করে দিয়েছি। মুজিববর্ষ উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অগ্রাধিকারমূলক প্রকল্প ভূমিহীন ও গৃহহীন মানুষের জন্য নির্মিতব্য আশ্রয়ণ প্রকল্পে তাদের একটি ঘরের ব্যবস্থা করে দেব। বোয়ালমারী উপজেলার সদর ইউনিয়নের সৈয়দপুরে এই  প্রকল্প বাস্তবায়নাধীন।

এ সময় শাহাদাত তার প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে বলেন, 'হাসিনা অনেক বছর বাঁচুক। তার জন্য ঘর পাব। ইউএনও স্যার ঘরের ব্যবস্থা করিছে।' 

উল্লেখ্য, শাহাদাতের পৈতৃক বাড়ি মাগুরা জেলার মোহাম্মদপুর উপজেলায় ছিল। জন্মের সময় মাকে এবং ৬ বছর বয়সে বাবাকে হারান। পৈতৃক সম্পত্তি ছিল না, তাই দারিদ্র্যতার কষাঘাতে এবং জীবিকার তাগিদে ফরিদপুরের বোয়ালমারীতে আসেন। এরপর কাগজ কুড়িয়ে জীবন চালান। পরবর্তীতে বোয়ালমারী পৌরসভার মেয়র মোজাফফর হোসেন বাবলু মিয়া মাস্টার রোলে দৈনিক ১৬০ টাকা বেতনে বাজার ঝাড়ুদারের চাকরি দেন এবং বোয়ালমারী হেলিপোর্টে সরকারি জায়গায় থাকার ব্যবস্থা করেন। এক পর্যায়ে হেলিপোর্টে বাসা থাকা সত্বেও ঠাঁই মেলে বোয়ালমারীর টিনপট্টিতে অবস্থিত এক গণশৌচাগারে।


বিডি প্রতিদিন/হিমেল


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৫ জানুয়ারি, ২০২১ ১৪:৪৬
প্রিন্ট করুন printer

কনকনে শীতে নীলফামারীতে স্থবির জনজীবন

নীলফামারী প্রতিনিধি:

কনকনে শীতে নীলফামারীতে স্থবির জনজীবন

হাড় কাঁপানো কনকনে শীতে স্থবির হয়ে পড়েছে নীলফামারীর জনজীবন। উত্তরের হিমেল বাতাস আর গুড়িগুড়ি বৃষ্টির মতো কুয়াশাপাত শীতের তীব্রতাকে বাড়িয়ে দিয়েছে কয়েকগুণ। 

ডিমলা আবহাওয়া অফিসের দেয়া তথ্য মতে, আজ সোমবার নীলফামারীতে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ১১ দশমিক ৬ডিগ্রি সেলসিয়াস। হিমালয়ের হিমবায়ু সক্রিয় থাকায় প্রতিনিয়ত এই এলাকায় বাড়ছে কুয়াশাপাত। রবিবার মধ্য রাতের পর থেকে সোমবার দুপুর ১২টা পর্যন্ত ঘন কুয়াশার চাদরে ঢাকা ছিল প্রকৃতি। এ সময় গুড়ি গুড়ি বৃষ্টিপাতের মতো ঝরেছে কুয়াশাপাত। দুপুরের পর সুর্যের দেখা মিললেও ছিল না কোন উত্তাপ। কুয়াশার ঘনত্বের কারনে দৃষ্টিসীমা একেবারে কমে এসেছে। 

দুর্ঘটনা এড়াতে সকাল ১০টা পর্যন্ত বিভিন্ন যানবাহনকে হেডলাইট জ্বালিয়ে চলাচল করতে দেখা গেছে। প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে বের হচ্ছে না কেউ। তবে শ্রমজীবী মানুষ আর ক্ষেত মজুররা জীবিকার তাগিদে বাধ্য হয়ে কাজে নেমেছে। 

বিডি প্রতিদিন/ মজুমদার 


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর

প্রকাশ : ২৫ জানুয়ারি, ২০২১ ১৪:৩৫
প্রিন্ট করুন printer

শ্রীপুরে উপজেলা বিএনপির মঞ্চ ভাঙচুরের অভিযোগ

শ্রীপুর (গাজীপুর) প্রতিনিধি:

শ্রীপুরে উপজেলা বিএনপির মঞ্চ ভাঙচুরের অভিযোগ

গাজীপুরের শ্রীপুরে উপজেলা বিএনপির সভামঞ্চ ভাঙচুরের অভিযোগ পাওয়া গেছে। শ্রীপুর উপজেলার মুলাইদ মডেল একাডেমি মাঠে উপজেলা বিএনপির আয়োজনে ওই মঞ্চ তৈরী করা হয়েছিল। আয়োজকেরা জানান, রবিবার রাতের কোনো এক সময়ে কে বা কারা তা ভেঙে দিয়েছে। আহ্বায়ক কমিটি গঠনের উদ্দেশে সভামঞ্চটি তৈরী করা হয়েছিল। ওই এলাকায় পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।

শ্রীপুর উপজেলা বিএনপির সভাপতি শাহজাহান ফকির জানান, আগে থেকেই বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষের অনুমতি নিয়ে সভা আহ্বান করা হয়। ওই সভায় গাজীপুর জেলা বিএনপির আহবায়ক ফজলুল হক মিলন প্রধান অতিথি ও সদস্য সচিব কাজী সাইয়্যেদুল আলম বাবুল বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকার কথা ছিল। কিন্তু রবিবার (২৪ জানুয়ারী) দিবাগত গভীর রাতে কে বা কারা মঞ্চ ভাঙচুর ও কুপিয়েছে তা চিহ্নিত করা যায়নি। আমরা সোমবার (২৫ জানুয়ারী) সকালে ঘটনা জেনে কর্মসূচি বাতিল করেছি। আমরা এ ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি।

গাজীপুর জেলা স্বেচ্ছাসেবকদলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কায়সার মৃধা খোকন জানান, কয়েকজন কর্মী নিয়ে তিনি সোমবার সকাল সাড়ে ৭টায় ব্যানার সাঁটাতে গিয়ে মঞ্চের বাঁশ নামানো, মঞ্চ ভাঙচুর, কাপড়-চোপড় টেনে হিঁচড়ে ছিড়ে মাটিতে ফেলে দেয়ার দৃশ্য দেখতে পান।

বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ডা. রফিকুল ইসলাম বাচ্চু বলেন, বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা ঘটনা শুনে সোমবার সকালে আশপাশের বিদ্যালয় মাঠে সমবেত হন। পরে সকাল আটটার দিকে জেলা গোয়েন্দা ও শ্রীপুর থানা পুলিশের সদস্যরা নেতা-কর্মীদের সেখান থেকে সরিয়ে দেন।

মুলাইদ মডেল একাডেমীর প্রতিষ্ঠাতা মকবুল হোসেন বলেন, মহামারী করোনাকালে বিদ্যালয় বন্ধ থাকায় মাঠটি বিভিন্ন সামাজিক, রাজনৈতিক সংগঠনের লোকজন নানা কর্মসূচিতে অনুমতি সাপেক্ষে ব্যবহার করেন। বিএনপি নেতৃবৃন্দও তাঁর কাছ থেকে অনুমতি নিয়ে প্যান্ডেল নির্মাণ করেছিলেন। তবে প্রশাসনিক অনুমতি ছিল কিনা তা আমার জানা নেই।

শ্রীপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খোন্দকার ইমাম হোসেন জানান, সভার কোনো পূর্বানুমতি না থাকায় শান্তি শৃঙ্খলা বজায় রাখতে ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

গাজীপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (বিশেষ শাখা) আমিনুল ইসলাম জানান, সেখানে কোনো সভার অনুমতি কেউ নেয়নি এবং এ ব্যাপারে পুলিশ বাহিনী অবগত ছিল না। মঞ্চ ভাঙচুরের কোনো অভিযোগও কেউ করেনি। 

 

বিডি প্রতিদিন/হিমেল


আপনার মন্তব্য

পরবর্তী খবর