শিরোনাম
প্রকাশ : ১২ জুন, ২০২১ ১৩:২৮
প্রিন্ট করুন printer

বাগেরহাটে করোনায় আরও চার জনের মৃত্যু

বাগেরহাট প্রতিনিধি

বাগেরহাটে করোনায় আরও চার জনের মৃত্যু
Google News

মোংলাসহ বাগেরহাট জেলায় বেড়েই চলেছে করোনা সংক্রমণ। গত ২৪ ঘন্টায় জেলায় নতুন করে আরও ৪ জনসহ মৃত্যুর সংখ্যা দাড়ালো ৫৭ জনে।

জানা গেছে, গতকাল শুক্রবার জেলা ও উপজেলার হাসপাতালে কোন করোনার র‌্যাপিট এন্টিজেন টেষ্ট না হলেও খুলনা পিসিআর টেষ্টে ৬ জনের করোনা পজেটিভ এসেছে। এরমধ্যে মোংলায় ২ জন, মোরেলগঞ্জে, শরণখোলা, ফকিরহাট ও মোল্লাহাট উপজেলায় ১ জন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছে। 

করোনার হর্টস্পর্ট মোংলা স্বাস্থ্য বিভাগের তথ্যমতে, আন্তজার্তিক সমুদ্র বন্দর মোংলা হাসপাতালে নেই কোন আইসিইউ বেড, হাইফো ন্যাজেল ক্যানেলা ও সেন্টাল অক্সিজেনের ব্যবস্থা। ইতিধ্যেই করোনা চিকিৎসায় দেখা দিয়েছে অক্সিজেন সংকট।

এই অবস্থায় করোনা আক্রান্তদের চিকিৎসা দিতে হিমসিম খেতে হচ্ছে স্বাস্থ্য বিভাগকে। যেসব করোনা রোগীদের অক্সিজেনের প্রয়োজন দেখা দিচ্ছে তাদের পাঠিয়ে দেওয়া হচ্ছে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনা ইউনিটে। 

এদিকে, মোংলায় তৃতীয় দফা দেওয়া করোনা বিধি নিষেধে ১৬ জুন মধ্যরাত পর্যন্ত চলমান রয়েছে। তবে নদী পারাপার ও যান চলাচল করছে, রয়েছে লোকসমাগমও। খোলা রয়েছে দোকানপাটও। স্বাস্থ্য বিধি, সামাজিক দূরত্ব ও মাস্ক ব্যবহার নেই। 

পৌর শহরের প্রবেশমুখগুলোতে পুলিশ আনসার থাকলেও সেখান থেকে হরহামেশা বিভিন্ন ইউনিয়নের লোকজন ও যানবাহন চলাচল করছে। স্থায়ী বন্দর এলাকায়ও বাসসহ বিভিন্ন যান চলাচল ও লোকসমাগমও বেশি দেখা গেছে। নিষেধাজ্ঞা থাকার পরও ভারতগামী নৌযানের ষ্টাফেরা শহরে নেমে ঘুরাফেরা করছেন। গাদাগাদি করে নদী পারাপার ও নৌযানের স্টাফদের অবাদ চলাচলের বিষয়ে ক্ষোভ জানিয়েছেন স্থানীয়রা। 

বাগেরহাটের সিভিল সার্জন ড. কে এম হুমাউন কবীর জানান, 'জেলায় এ পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষায় করোনা শনাক্ত হয়েছে ২ হাজার ৫২ জন। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৫৭ জনের। চিকিৎসাধীন রয়েছেন ১৩ জন এবং বাকিরা হোম আইসোলেশনে চিকিৎসাধীন রয়েছে।'

 

বিডি প্রতিদিন / অন্তরা কবির 

এই বিভাগের আরও খবর