Bangladesh Pratidin || Highest Circulated Newspaper

শিরোনাম
প্রকাশ : ১৭ জুন, ২০১৯ ০৩:১৬

ইমরান খানের কথা না শুনে মাশুল দিল সরফরাজ

অনলাইন ডেস্ক

ইমরান খানের কথা না শুনে মাশুল দিল সরফরাজ

বিশ্বকাপের ২২তম ম্যাচে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ভারতের কাছে পাত্তা পাইনি পাকিস্তান। পাকিস্তানকে ৮৯ রানে হারিয়ে দুর্দান্ত জয় পেয়েছে ভারত। রোহিত শর্মার ১৪০ ও অধিনায়ক বিরাট কোহলির ৭৭ রানের দায়িত্বশীল ইনিংসে ভারতের দেয়া ৩৩৬ রানের টার্গেটে খেলতে নেমে ৬ উইকেট হারিয়ে ২১২ রানে থামতে হয় পাকিস্তানকে; বৃষ্টির কারণে ৩০২ রানের টার্গেটে ইনিংসটি ৪০ ওভার নির্ধারণ করা হয়।

এই হাই-ভোল্টেজ ম্যাচে টস জিতে ব্যাট না করে; উল্টো কোহলিদের আমন্ত্রণ জানান সরফরাজ। ভারতীয়দের শক্ত ব্যাটিং লাইন আপের সামনে এমন এক সিদ্ধান্ত নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। তাছাড়া পাকিস্তানের সাবেক ক্রিকেটার ও দেশটির প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের পরামর্শ না শুনে বোধ হয় আরো বড় অন্যায় করেছেন সরফরাজ। অবশ্য ক্রিকেট কিংবদন্তীকে অমান্য করার মাশুলও গুনতে হয়েছে পাক ক্রিকেটারদের। ফিল্ডিংয়ের সিদ্ধান্ত নেওয়ায় রোহিত শর্মা-বিরাট কোহলিরা তাদের বল নিয়ে রীতিমত ছেলেখেলা করে ৩৩৬ রানের বিশাল টার্গেট ছুড়ে দেয় পাকিস্তানকে।

এর আগে এক টুইটে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান লেখেন, ‘পিচ যদি ভেজা না থাকে, তাহলে টস জিতে অবশ্যই ব্যাটিং নিতে হবে এবং আক্রমণাত্মক ক্রিকেট খেলতে হলে দলে স্পেশাল বোলার-ব্যাটসম্যান রাখতে হবে।’ কিন্তু ইমরানের টস জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেওয়ার কথা রাখেনি সরফরাজ। ম্যানচেস্টারের ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে ভারতের বিপক্ষে টস জিতে প্রথমে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেন পাকিস্তান অধিনায়ক।

টস জেতার পর সরফরাজ বলেন, আমরা প্রথমে বোলিং করতে চাই। গত তিনদিন ধরে ওল্ড ট্রাফোর্ডে বৃষ্টি হচ্ছে এবং কন্ডিশন খুবই ভালো বোলারদের জন্য। সরফরাজের এই সিদ্ধান্তকে সমর্থন জানায় ভারতের অধিনায়ক বিরাট কোহলিও। তিনি বলেন, ‘সত্যি বলতে, টস জিতলে আমরাও আগে বোলিং করার সিদ্ধান্ত নিতাম। উইকেট খুবই সুন্দর দেখা যাচ্ছে এবং আমাদের দলে দুইজন লেগ স্পিনার আছে। আগে ব্যাটিং করলেও আমাদের কোনো সমস্যা নেই।’ কিন্তু খেলার ফলাফল এ ভাবনাকে মিথ্যা প্রমাণিত করেছে।

বিডি-প্রতিদিন/আরাফাত/শফিক


আপনার মন্তব্য