শিরোনাম
প্রকাশ : বৃহস্পতিবার, ৭ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ টা
আপলোড : ৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ২৩:২৭

পোপের স্বীকারোক্তি

যাজকেরা যৌন নিপীড়ন করে থাকেন

যাজকেরা যৌন নিপীড়ন করে থাকেন

প্রথমবারের মতো পোপ ফ্রান্সিস স্বীকার করেছেন, নানদের ওপর যাজকেরা যৌন নিপীড়ন করে থাকেন। তিনি বলেন, এমনকি অনেক যাজক নানদের যৌনদাসী করে রাখেন। মধ্যপ্রাচ্যে ঐতিহাসিক সফরে গিয়ে গত মঙ্গলবার পোপ ফ্রান্সিস এ কথা বলেন। রয়টার্স। পোপ ফ্রান্সিস আরও বলেন, তার পূর্বসূরি পোপ বেনেডিক্ট যাজকদের যৌন হয়রানির নিপীড়ন থেকে নানদের মুক্ত করতে পুরো একটি প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দিয়েছিলেন। প্রথমবারের মতো যাজকদের হাতে নানদের নিপীড়নের শিকার হওয়ার কথা স্বীকার করে পোপ বলেন, সমস্যা চিহ্নিত করার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

 সে কাজ এখনো চলছে। নারীদের যৌনদাসী করার বিষয়টি এত চরম পর্যায়ে পৌঁছেছিল যে, পোপ বেনেডিক্ট প্রতিষ্ঠানটি বন্ধ করে দিতে বাধ্য হয়েছিলেন। পরে ভ্যাটিকান প্রেস অফিসের আলেসান্দ্রো গিসোতি সিবিএস নিউজকে এসব কথা জানান।

প্রসঙ্গত, গত নভেম্বরে ক্যাথলিক চার্চের নানদের বৈশ্বিক সংগঠন জানায়, ভয় ও নীরবতার সংস্কৃতির কারণে তারা এত দিন গির্জায় যৌন নিপীড়নের বিষয়ে মুখ খুলতে পারেননি। ভ্যাটিকানের নারীদের ম্যাগাজিন উইমেন চার্চ ওয়ার্ল্ড বলেছে, নিষিদ্ধ হলেও যাজকদের চাপে পড়ে নানদের গর্ভপাত করাতে হয়। বিশ্বব্যাপী যৌন নিপীড়নবিরোধী হ্যাশট্যাগ মি টু আন্দোলন শুরুর পর গির্জায় নারীদের যৌন নিপীড়নের খবর প্রকাশ্যে আসতে শুরু করে।


আপনার মন্তব্য