শিরোনাম
প্রকাশ : শুক্রবার, ২৪ জানুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৩ জানুয়ারি, ২০২০ ২৩:৪২

বসুন্ধরায় জমে উঠেছে ভারতীয় প্রকৌশল প্রদর্শনী

নিজস্ব প্রতিবেদক

বসুন্ধরায় জমে উঠেছে ভারতীয় প্রকৌশল প্রদর্শনী

ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি, বসুন্ধরায় (আইসিসিবি) জমে উঠেছে ভারতীয় প্রকৌশল প্রদর্শনী। কাক্সিক্ষত পণ্য ও মেশিনারিজের খোঁজে ভিড় জমাচ্ছেন ঢাকা ছাড়াও অন্যান্য জেলার শিল্পোদ্যোক্তারা। দর্শনার্থীর অধিকাংশই ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পপ্রতিষ্ঠানের মালিকপক্ষ বা নতুন উদ্যোক্তা। এক ছাদের নিচে শতাধিক ভারতীয় প্রতিষ্ঠানের হরেকরকম প্রকৌশল পণ্যের হদিস মেলায় প্রদর্শনী ঘিরে উদ্যোক্তাদের মধ্যে ব্যাপক আগ্রহ দেখা গেছে। রয়েছে বেশকিছু দেশি প্রতিষ্ঠানও। গতকাল প্রদর্শনীতে ঢাকার বাইরে থেকে আসা অনেক দর্শনার্থীরও দেখা মেলে। তেমনই একজন যশোরের এইচ বি এন্টারপ্রাইজের স্বত্বাধিকারী মো. মাসুম বলেন, ‘অনেক ভারতীয় প্রতিষ্ঠান এ প্রদর্শনীতে অংশগ্রহণ করেছে শুনে যশোর থেকে এসেছি। আমার দরকার সেমি অটো ইনজেকশন মোল্ডিং মেশিন ও ভার্টিক্যাল টাইপ ইনজেকশন মোল্ডিং মেশিন। বাংলাদেশে খুঁজে পাইনি। হাতে চালানো মেশিন অবশ্য ১২ থেকে ১৮ হাজার টাকায় পাওয়া যায়। কিন্তু শ্রমিক পাওয়া যায় না। সেমি অটো মেশিনের দাম বেশি হলেও শ্রমিকের অভাব হয় না। মেয়েরাও চালাতে পারেন।’ গতকাল সরেজমিন প্রদর্শনী ঘুরে দেখা গেছে, স্টলে স্টলে সাজিয়ে রাখা হয়েছে বিভিন্ন মেশিনারি ও খুচরা যন্ত্রাংশ। পাশাপাশি রাখা হয়েছে সেই মেশিনে তৈরি পণ্য। রয়েছে ডাইস, মোল্ডস, অটো পার্টস, টিউব, পাইপ, কেবলসহ ইলেকট্রিক সরঞ্জাম, ইলেকট্রিক্যাল ও ইন্ডাস্ট্রিয়াল মেশিনারি ও পার্টস, মেশিন টুলস ও অ্যাকসেসরিজ, কৃষিকাজে ব্যবহৃত যন্ত্রপাতি, নির্মাণকাজে ব্যবহৃত যন্ত্রপাতি, প্লাস্টিকের কাঁচামাল, মেশিনারিসহ নানা পণ্য।

দর্শনার্থীদের সেসব মেশিনারিজের কার্যকারিতা, উৎপাদন ক্ষমতা, উৎপাদন খরচ, মেশিনের দাম, বিক্রয়োত্তর সেবা ইত্যাদি সম্পর্কে অবহিত করছেন প্রতিষ্ঠানগুলোর কর্মীরা। ‘প্রবৃদ্ধির জন্য অংশীদার’ স্লোগানে আইসিসিবির দুটি হলে গত বুধবার শুরু হওয়া ভারতীয় প্রকৌশল প্রদর্শনী শেষ হবে আজ সন্ধ্যায়। প্রদর্শনীতে শতাধিক শীর্ষস্থানীয় ভারতীয় প্রতিষ্ঠান ছাড়াও বেশকিছু বাংলাদেশি প্রতিষ্ঠান তাদের প্রযুক্তিপণ্য তুলে ধরেছে।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর