শিরোনাম
প্রকাশ : বুধবার, ১৩ জানুয়ারি, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১২ জানুয়ারি, ২০২১ ২৩:০৮

২৮২ দিন পর ৫ শতাংশে নামল সংক্রমণ হার

২৪ ঘণ্টায় শনাক্ত ৭১৮, মৃত্যু ১৬

নিজস্ব প্রতিবেদক

২৮২ দিন পর ৫ শতাংশে নামল সংক্রমণ হার

দেশে করোনাভাইরাস সংক্রমণ হার ২৮২ দিন পর গতকাল আবারও ৫ শতাংশে নেমেছে। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার হিসাবে সংক্রমণ হার ৫ শতাংশ বা এর নিচে থাকলে তাকে নিরাপদ সংক্রমণ ধরা হয়। তবে বিশেষজ্ঞরা বলছেন, সংক্রমণ হার ৫ শতাংশে নামলেই হবে না, এই হার টানা ৪ সপ্তাহ ধরে রাখতে হবে। এটাই মূল চ্যালেঞ্জ। কঠোরভাবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে এটা করা সম্ভব। অন্যথায়, আবারও সংক্রমণ বেড়ে যেতে পারে। গতকাল স্বাস্থ্য অধিদফতরের নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে দেশে করোনা সংক্রমণের সবশেষ তথ্য তুলে ধরা হয়। স্বাস্থ্য অধিদফতরের তথ্যানুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় ১৪ হাজার ৩৬৩টি নমুনা পরীক্ষায় ৭১৮ জনের দেহে সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে। শনাক্তের হার ৫ শতাংশ। এর চেয়ে কম ৪ দশমিক ৯০ শতাংশ শনাক্ত হারের তথ্য জানানো হয় গত ৫ এপ্রিল। গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হয়েছে ১৬ জনের ও সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৯৬৩ জন। গত বছরের ৮ মার্চ দেশে প্রথম করোনা রোগী শনাক্তের তথ্য জানানোর পর থেকে এখন পর্যন্ত মোট রোগী শনাক্ত হয়েছে ৫ লাখ ২৪ হাজার ২০ জন। ১৮ মার্চ প্রথম মৃত্যুর তথ্য জানায় স্বাস্থ্য অধিদফতর। এখন পর্যন্ত মোট মারা গেছেন ৭ হাজার ৮১৯ জন। মোট সুস্থ হয়ে উঠেছেন ৪ লাখ ৬৮ হাজার ৬৮১ জন। শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৮৯ দশমিক ৪৪ শতাংশ ও মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৪৯ শতাংশ। গত ২৪ ঘণ্টায় মারা যাওয়া ১৬ জনের মধ্যে ১০ জন ছিলেন পুরুষ ও ৬ জন নারী। সবারই মৃত্যু হয়েছে হাসপাতালে। বয়স বিবেচনায় মৃতদের মধ্যে ১৪ জনই ছিলেন ষাটোর্ধ্ব। এ ছাড়া একজন ছিলেন পঞ্চাশোর্ধ্ব ও একজনের বয়স ছিল ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে। এর মধ্যে ১০ জন ঢাকা, দুজন সিলেট ও একজন করে চট্টগ্রাম, রাজশাহী, খুলনা ও ময়মনসিংহ বিভাগের বাসিন্দা ছিলেন। এদিকে গত কয়েক দিন ধরে আইসিইউতে শংকটাপন্ন রোগীর সংখ্যা কমছে। গতকালও সারা দেশের কভিড-১৯ ডেডিকেটেড হাসপাতালগুলোর মোট ৬০২টি আইসিইউর মধ্যে ৩৬০টি খালি ছিল। ভর্তি ছিলেন ২৪২ জন। এক মাস আগে গত ১২ ডিসেম্বরও আইসিইউতে ৩৪৯ জন রোগী ভর্তি ছিলেন।


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর