শিরোনাম
প্রকাশ : মঙ্গলবার, ১১ মে, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ১০ মে, ২০২১ ২৩:৩০

তিন থেকে পাঁচ বছর মেয়াদি পরিকল্পনা দরকার

-অধ্যাপক শাহ্ সাজেদা

তিন থেকে পাঁচ বছর মেয়াদি পরিকল্পনা দরকার
Google News

বরিশাল সরকারি ব্রজমোহন কলেজের অবসরপ্রাপ্ত অধ্যাপক ও সচেতন নাগরিক কমিটির (সনাক) সভাপতি শাহ্ সাজেদা বলেছেন, কভিডে দেশের অর্থনীতি, স্বাস্থ্য ও শিক্ষা খাত ব্যাপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। আসন্ন বাজেটে অর্থনীতি ও স্বাস্থ্য খাতে বেশি বরাদ্দ হওয়া উচিত। শিক্ষা খাতের ক্ষতি পুষিয়ে নিতে তিন থেকে পাঁচ বছর মেয়াদি পরিকল্পনা দরকার। স্থানীয় সরকার বিভাগ এবং জেলা প্রশাসন এসব বিষয় খতিয়ে দেখে যথাযথ ব্যবস্থা নিলে করোনা মোকাবিলা করে ঘুরে দাঁড়ানো সহজ হবে।

তিনি আরও বলেন, দেশ থেকে একসময় কভিড চলে যাবে। সেসব বিষয় বিবেচনায় রেখে যুগোপযোগী বাজেট প্রণয়ন করতে হবে। জনগণের বর্তমান ও ভবিষ্যৎ চাহিদাকে গুরুত্ব দিতে হবে। স্থানীয়ভাবে বাড়াতে হবে নাগরিক সুযোগ-সুবিধা। তিনি বলেন, স্বাধীনতার ৫০ বছরেও বরিশালে একটি মেডিকেল ও ইঞ্জিনিয়ারিং বিশ্ববিদ্যালয় হলো না। এখানে কর্মজীবী নারীদের জন্য নেই একটি হোস্টেল। আসন্ন বাজেটে মেডিকেল ও ইঞ্জিনিয়ারিং বিশ্ববিদ্যালয় এবং কর্মজীবী নারী হোস্টেলের জন্য বরাদ্দ চান তিনি। সনাক সভাপতি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণার সাড়ে তিন বছর পার হলেও ভাঙ্গা থেকে কুয়াকাটা পর্যন্ত ফোর লেন ও রেললাইন স্থাপন প্রকল্প আমলাতান্ত্রিক জটিতলায় আলোর মুখ দেখছে না। আমলাদের স্বেচ্ছাচারিতা ও অবহেলা বন্ধ করে এ মেগা প্রকল্পে গতি ফেরাতে বাজেটে পর্যাপ্ত বরাদ্দ চান তিনি। এসব প্রকল্প বাস্তবায়নে স্থানীয় ক্ষমতাসীন রাজনৈতিক মহলের জোর তদবির থাকা উচিত বলে তিনি মনে করেন। পায়রা সমুদ্রবন্দরের সুবিধা কাজে লাগাতে বরিশালে একটি শিল্প জোন গড়তে আগামী বাজেটে বরাদ্দ দাবি করেন বরিশালের সুশীলসমাজের প্রতিনিধিত্বকারী অধ্যাপক শাহ্ সাজেদা। তিনি বলেন, সারা দেশে অবকাঠামোগত উন্নয়নের জোয়ার বইছে। কিন্তু সে তুলনায় দক্ষিণের সদর দফতর বরিশাল সিটি এলাকায় কোনো উন্নয়ন নেই। সিটি নির্বাচনের সময় বরিশাল মহানগরের উন্নয়ন নিয়ে অনেক প্রতিশ্রুতি দেওয়া হলেও দীর্ঘ আড়াই বছরে অর্জন সন্তোষজনক নয়। দেশি-বিদেশি মানুষ আকৃষ্ট করতে এখন পর্যন্ত দৃশ্যমান কোনো নতুন নান্দনিকতা নেই। সারা দেশের সঙ্গে উন্নয়নে তাল মেলাতে বরিশাল মহানগরের উন্নয়নে ‘খাল খনন ও সৌন্দর্যবর্ধন’, ‘রাস্তাঘাট ও ড্রেনেজ’ নির্মাণ এবং মহানগরের বর্ধিত এলাকা ‘আলোকায়নে’র জন্য মন্ত্রণালয়ে জমা দেওয়া সাড়ে ৩ হাজার কোটি টাকার তিনটি প্রকল্পে আসন্ন বাজেটে অর্থ বরাদ্দ দেওয়ার জন্য সরকারের কাছে দাবি জানান বরিশাল মহিলা পরিষদের সহসভাপতি অধ্যাপক শাহ্ সাজেদা।