শিরোনাম
প্রকাশ : শনিবার, ২৯ মে, ২০২১ ০০:০০ টা
আপলোড : ২৯ মে, ২০২১ ০০:০০

সিলেট-৩ আসনে নৌকার মাঝি হতে চান সবাই

শাহ্ দিদার আলম নবেল, সিলেট

Google News

সিলেট-৩ আসনের উপনির্বাচনে কে হচ্ছেন আওয়ামী লীগের প্রার্থী? কার ভাগ্যে জুটছে দলীয় প্রতীক নৌকা- এমন আলোচনা এখন সর্বত্র। নৌকা প্রতীক পেলেই ‘নিশ্চিত এমপি’, এমন চিন্তা থেকে এখন সংসদীয় আসনটির তিন উপজেলার প্রায় সব নেতা মাঠে সরব। দলীয় মনোনয়নপ্রত্যাশীদের তালিকায় রয়েছেন আওয়ামী লীগের অন্তত দুই ডজন নেতা। সবাই চান নৌকা। তিনবারের নির্বাচিত আওয়ামী লীগ দলীয় সংসদ সদস্য মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী কয়েসের মৃত্যুতে শূন্য হওয়া আসনটিতে ২ জুন উপনির্বাচনের তফসিল ঘোষণা হওয়ার কথা রয়েছে।

দলীয় মনোনয়নপ্রত্যাশীদের মধ্যে রয়েছেন প্রয়াত সংসদ সদস্য মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী কয়েসের স্ত্রী ফারজানা সামাদ চৌধুরী, আওয়ামী লীগের তিনবারের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ, বিএমএর কেন্দ্রীয় মহাসচিব ডা. ইহতেশামুল হক চৌধুরী দুলাল, জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য হাবিবুর রহমান হাবিব, যুবলীগের কেন্দ্রীয় সদস্য অ্যাডভোকেট আবদুর রকিব মন্টু, যুক্তরাজ্যের ম্যানচেস্টার আওয়ামী লীগের সভাপতি এনাম উল ইসলাম, ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক শাহ মুজিবুর রহমান জকন, জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট নিজাম উদ্দিন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কবির উদ্দিন, সাংগঠনিক সম্পাদক সাইফুল আলম রুহেল, সদস্য বদরুল ইসলাম জাহাঙ্গীর, সদস্য শমসের জামাল, জেলা আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক কফিল আহমদ চৌধুরী, যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক সম্পাদক আ স ম মিসবাহ, যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মুক্তিযোদ্ধা অ্যাডভোকেট দেওয়ান গৌস সুলতান, যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা মনির হোসাইন, ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবদুল বাছিত টুটুল, দক্ষিণ সুরমা উপজেলা শাখার সভাপতি সাইফুল আলম, দক্ষিণ সুরমা উপজেলা চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আবু জাহিদ ও বালাগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান মো. মোস্তাকুর রহমান মফুর। এ ছাড়া সিলেট-৩ আসনের বাইরের বাসিন্দা হলেও আসনটিতে দলীয় মনোনয়নপ্রত্যাশী হিসেবে আলোচনায় রয়েছেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামন্ডলীর সদস্য ইনাম আহমদ চৌধুরী ও সিলেট-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি শফিকুর রহমান চৌধুরী।

এ আসনে স্বামীর অসম্পন্ন উন্নয়ন কাজ সম্পন্ন করতে দলীয় মনোনয়ন চান ফারজানা সামাদ চৌধুরী। তিনি বলেন, সাধারণ মানুষ নির্বাচন করার অনুরোধ করেছেন। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মনোনয়ন দিলে প্রার্থী হব।

ছাত্ররাজনীতি দিয়ে উঠে আসা অ্যাডভোকেট মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ স্থানীয় আওয়ামী লীগের গন্ডি পেরিয়ে তিনবারের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ছিলেন। গত জাতীয় সংসদ নির্বাচনে তিনি সিলেট-৩ আসনে দলীয় মনোনয়ন চেয়েছিলেন। মনোনয়ন না পেলেও নির্বাচনে দলীয় প্রার্থীর পক্ষে সরব ছিলেন তিনি। ১৯৭৫-এর ১৫ আগস্টের পর সিলেটে খন্দকার মোশতাকের জনসভা প- করতে তিনি অগ্রণী ভূমিকা পালন করেছিলেন। দলের একটি বড় অংশ এবার দলীয় প্রার্থী হিসেবে তাকে দেখতে চাইছেন। উপনির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার লক্ষ্যে এলাকায় ব্যাপক গণসংযোগ চালিয়ে যাচ্ছেন বিএমএর মহাসচিব ডা. ইহতেশামুল হক চৌধুরী দুলাল। অত্যন্ত সজ্জন ব্যক্তি হিসেবে পরিচিত ডা. দুলাল ইতিমধ্যেই দলীয় নেতা-কর্মী ও সাধারণ মানুষের মধ্যে ব্যাপক সাড়া ফেলেছেন। সাধারণ ভোটাররা মনে করছেন ডা. দুলাল সংসদ সদস্য নির্বাচিত হলে আগামীতে জাতীয় রাজনীতিতে সিলেটের প্রতিনিধিত্ব বাড়বে। সিলেটের স্বাস্থ্যসেবার সুযোগ ও মান বৃদ্ধিতে তিনি বড় ভূমিকা রাখবেন বলেও মনে করছেন স্থানীয়রা। ডা. দুলালের বড় ভাই বীর মুক্তিযোদ্ধা ইনামুল হক চৌধুরীও দুইবারের সংসদ সদস্য ছিলেন।

গত দুই জাতীয় সংসদ নির্বাচন থেকে সিলেট-৩ আসনে দলীয় মনোনয়ন চেয়ে আসছেন সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য হাবিবুর রহমান হাবিব। প্রায় এক যুগ ধরে তিনি এলাকায় কাজ করছেন। বন্যা ও করোনার মতো সংকটময় সময়ে তিনি এলাকার মানুষের পাশে দাঁড়িয়ে প্রশংসা কুড়িয়েছেন। সুখে-দুঃখে পাশে থাকায় দলের একটি অংশ এবার উপনির্বাচনে হাবিবকে দলীয় প্রার্থী হিসেবে প্রত্যাশা করছে। ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহ মুজিবুর রহমান জকন বলেন, ‘গত উপজেলা নির্বাচনে দলীয় প্রতীক নৌকা দিয়ে নেত্রী আমার ওপর আস্থা রেখেছিলেন। কিন্তু স্থানীয় ষড়যন্ত্রকারী নেতার কারণে নৌকার বিজয় নিশ্চিত করা যায়নি। উন্নয়ন ও দলের স্বার্থে এবারও নেত্রী আস্থা রাখলে তৃণমূলের নেতা-কর্মীদের সঙ্গে নিয়ে বিজয় নিশ্চিত করব- ইনশাআল্লাহ।’

ম্যানচেস্টার আওয়ামী লীগের সভাপতি এনাম উল ইসলাম মনে করেন, তিনি নির্বাচিত হলে সরকারের পাশাপাশি এলাকার উন্নয়ন ও কর্মসংস্থানে তিনি ব্যক্তিগতভাবে অনেক কাজ করার সুযোগ পাবেন। সিলেট জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি শফিকুর রহমান চৌধুরী বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুর আদর্শের সৈনিক হিসেবে কাজ করছি। কোনো কিছু পাওয়ার আশায় রাজনীতি করি না। দলীয় সভানেত্রী যদি কোথাও কোনো কাজে লাগাতে চান, তবে আমি প্রস্তুত আছি।’

আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামন্ডলীর সদস্য ইনাম আহমদ চৌধুরী বলেন, সিলেটের উন্নয়ন ও দলের স্বার্থে দলীয় সভানেত্রী শেখ হাসিনা তাঁকে কাজে লাগাতে চাইলে সিলেট-৩ আসনে তিনি নির্বাচন করতে প্রস্তুত আছেন।

এই বিভাগের আরও খবর