শিরোনাম
প্রকাশ : ১ এপ্রিল, ২০২১ ১১:৪৫
আপডেট : ১ এপ্রিল, ২০২১ ১৪:৫৬
প্রিন্ট করুন printer

বাইডেনের অভিবাসন ইস্যুতে বিরক্ত অধিকাংশ নাগরিক

যুুক্তরাষ্ট্র প্রতিনিধি:

বাইডেনের অভিবাসন ইস্যুতে বিরক্ত অধিকাংশ নাগরিক

প্রেসিডেন্ট বাইডেনের অভিবাসন ইস্যুতে অধিকাংশ আমেরিকানই বিরক্ত। ইউএস-মেক্সিকো সীমান্তে প্রতিদিন হাজারো বিদেশির ভিড় এবং শিশুদের একাকী সীমান্তে ঠেলে দেয়ার ঘটনার আলোকে এনপিআর/মরিস্ট পোল পরিচালিত জরিপে এমন অবস্থা প্রতীয়মান হয়েছে। 

প্রাপ্ত বয়স্ক ১৩০৯ জন আমেরিকান অংশ নেন এ জরিপে এবং তা মার্চের ২২ থেকে ২৫ তারিখের মধ্যে চালানো হয়েছে। করোনা এবং অর্থনৈতিক পরিস্থিতি সঠিকভাবে হ্যান্ডেল করার পক্ষে ৫০% এর অধিক আমেরিকান মত দিলেও অভিবাসন ইস্যুতে অধিকাংশই অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন। 

৫৩% বলেছেন যে, অভিবাসন ইস্যুতে বাইডেনের পদক্ষেপে তারা সন্তুষ্ট নন। মাত্র ৩৪% সন্তুষ্ট বলেও জরিপে উদঘাটিত হয়েছে। তবে জরিপে অংশগ্রহণকারি ডেমক্র্যাটদের ৬৬% বাইডেনের অভিবাসন ইস্যুতে সময়োপযোগী হিসেবে অভিহিত করেছেন। ডেমক্র্যাটদের মাত্র ২৩% বলেছেন যে, তারা বাইডেনের অভিবাসন ইস্যুতে বিরক্ত। জরিপে অংশ নেয়া ল্যাটিনোদের ৪৩% সন্তোষ প্রকাশ করলেও সমপরিমাণের অসন্তুষ্ঠির কথা জানিয়েছেন। চলতি সপ্তাহে এবিসি নিউজ/আইপএসওএস পরিচালিত অপর জরিপে ৫৭% আমেরিকান অভিবাসন ইস্যুতে বাইডেনের কার্যক্রমকে সঠিক নয় বলে উল্লেখ করেছেন। 

২০ জানুয়ারি ক্ষমতা গ্রহণের পর ট্রাম্পের অভিবাসন বিরোধী সকল নির্দেশ পাল্টে দিয়েছেন বাইডেন। এমনকি, দায়িত্ব গ্রহণের পরই অভিবাসন ইস্যুকে মানবিকতায় ঢেলে সাজানোর প্রস্তাবও পাঠিয়েছেন কংগ্রেসে। সে সংবাদ প্রকাশ ও প্রচারের পরই সেন্ট্রাল আমেরিকার হাজার হাজার মানুষ সপরিবারে মেক্সিকো সীমান্তে ভীড় করছেন। ভীড় বাড়ছে প্রতিদিনই। শিশু সন্তানদেরকে অভিভাবকেরা সীমান্তের ভেতরে ঠেলে দিচ্ছেন। ১৫ হাজারের অধিক শিশু যাদের বয় ১৩ বছরের কম, তাদেরকে যুক্তরাষ্ট্রের সীমান্ত রক্ষীরা উদ্ধার করে বিভিন্ন শিবিরে রেখেছেন। প্রেসিডেন্ট বাইডেন সীমান্তের পরিস্থিতি আলোকে বারবার আহবান জানিয়েছেন এভাবে জড়ো না হতে। নিজ নিজ বাড়িতে অবস্থানের কথাও বলেছেন। 

বাইডেন উল্লেখ করেছেন যে, নিজ বাসস্থানে থেকেই নিরাপদে কাজের পরিবেশ সৃষ্টির বিভিন্ন পরিকল্পনা নেয়া হয়েছে। ইতিমধ্যেই সেজন্যে বিপুল অর্থ বরাদ্দের কথাও জানিয়েছেন বাইডেন। কিন্তু যুক্তরাষ্ট্র সীমান্ত অভিমুকে মানুষের স্রোত কমেনি। অমানবিক পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে, যা নিয়ে ইতিমধ্যেই সংশ্লিষ্ট সকলে গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। 

বিডি প্রতিদিন/ মজুমদার 


আপনার মন্তব্য

এই বিভাগের আরও খবর